Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৯ শুক্রবার, জুলাই ২০১৯ | ৪ শ্রাবণ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

কাঁদলেন মিলা, বললেন নওশীনের সাথেও আমার স্বামীর অশ্লীল সম্পর্ক ছিলো

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ০৮:২৭ PM
আপডেট: ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ০৮:২৭ PM

bdmorning Image Preview


আমার সঙ্গে তখনও ডিভোর্স হয়নি। কিন্তু তখনই আমার সহকর্মী হিল্লোল ভাইয়ের স্ত্রী নওশিনের সম্পর্ক ছিলো। তারা ফেসবুক মেজেঞ্জারে অশ্লীল ছবি আদান প্রদান করতো।

আজ বুধবার বিকেল ৪টায় রাজধানীর বেইলি রোডের একটি রেস্টুরেন্টে সংবাদ সম্মেলনে অশ্রুসিক্ত চোখে কথাগুলো বলছিলেন কণ্ঠশিল্পী মিলা।

মিলা বলেন, আমি বিষয়টি জানার পর নওশিনকে কল দেই। তখন সে বলে, একজন পাইলটের সাথে পরিচয় থাকতেই পারে। তখন তাকে আমি ধমকের সুরে বলি তুমি কি পাইলট যে পাইলটের সাথে সম্পর্ক থাকবে? আর নরমাল সম্পর্ক থাকলে কিভাবে মেসেঞ্জারে খোলামেলা ছবি পাঠাও?

এদিকে, মিলা তার সংসার ভাঙ্গার জন্য নওশিনের পাশাপাশি বেসরকারি টিভি চ্যানেল ইটিভির তাসনুভা নামে একজন নারী কর্মকর্তাকেও দায়ী করেন।

এসময় মিলা এই দুইজন ছাড়াও অন্যান্যা নারীদের সাথেও শারীরিক সম্পর্ক ছিলো বলেও দাবি করেন।

এ সময় মিলা তার স্বামী ও তার পরিবারের নির্যাতনের কথা তুলে মিলা বলেন, ‘আমাকে প্রায় বাসা থেকে বের করে দিতো।’ এই কথা বলার পরই অঝোরে কাঁদা শুরু করেন মিলা। এরপর স্বাভাবিক কথা বলার চেষ্টা করলেও কিছুক্ষণ পর পর কান্নায় ভেঙে পড়েন তিনি।

স্বামীর বিরুদ্ধে নারী নির্যাতন-যৌতুকের অভিযোগে এনে মামলা করেছেন মিলা। সেই মামলা তুলে নেওয়ার জন্য তার প্রতি আসা হুমকির ও হেনস্তার কথাও উল্লেখ করেন তিনি। এমনকি বাথরুম থেকে নগ্ন অবস্থায় টেনে বের করে এনে মানুষের সামনে শাশুড়ির মারধর ও অকথ্য গালিগালাজ করার কথাও জানান। তার ওপর হয়ে যাওয়া অন্যায়ের সঠিক বিচারের প্রত্যাশা করেন তিনি।

সবাইকে পাশে থাকার আহ্বান জানিয়ে মিলা বলেন, ‘আজ আমি ও আমার পরিবার আপনাদের সামনে উপস্থিত হয়েছি। আমার ভালো-খারাপ সকল সময়ের সাক্ষী আপনারাই। তাই এখন একমাত্র আপনাদের সাহায্যই পারবে আমাকে ন্যায্য বিচার দিতে। সবাইকে আমার পাশে থাকার জন্য বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি।’

মিলা বলেন, আমার সঙ্গে দীর্ঘ ১২ বছর সম্পর্কের পর জানতে পারি অনেক নারীর সাথে তার শারীরিক সম্পর্ক ছিলো। বিষয়টি আমি জানার পর আমার কাছে সে ক্ষমা চায়। আমি প্রথমবার ক্ষমা করে দিই। কিন্তু সে আমার সাথে প্রতিনিয়ত এমন চিট করেছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের মে মাসে পারিবারিকভাবে বৈমানিক পারভেজ সানজারির সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন মিলা ইসলাম। বিয়ের পর গানে হয়ে পড়েন অনিয়মিত। জড়িয়ে যান সংসার জীবনের দ্বন্দ্ব-বিবাদে। নারী নির্যাতন-যৌতুকের অভিযোগে এনে স্বামী সানজারীর বিরুদ্ধে মামলাও করেন তিনি। সবশেষে, সংসার জীবনের ইতি টানেন পপ গানের এই শিল্পী।

Bootstrap Image Preview