Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২১ শুক্রবার, সেপ্টেম্বার ২০১৮ | ৬ আশ্বিন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

মোবাইলের আলো জ্বালিয়ে খালেদা জিয়াকে স্বাগত জানিয়েছে নেতাকর্মীরা

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৮ অক্টোবর ২০১৭, ০৮:২৬ PM আপডেট: ১৮ অক্টোবর ২০১৭, ০৮:২৬ PM

bdmorning Image Preview


বিডিমর্নিং ডেস্ক-

তিন মাস লন্ডন সফর শেষে আজ বুধবার বিকাল ৫ টায় দেশে ফিরছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। অন্যান্য দিনের মতো আজ সন্ধ্যার পর থেকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সড়কের বাতি জ্বলেনি। তাই মোবাইল ফোনের আলো জ্বালিয়ে দলের চেয়ারপার্সনকে স্বাগত জানিয়েছে ওই সড়কে উপস্থিত বিএনপির নেতাকর্মীরা।

এদিকে আজ দুপুর থেকেই বিমানবন্দর সড়কে ভিড় জমাতে শুরু করেন দলটির নেতা-কর্মীরা। কিন্তু দলটির নেত্রীর আগমনের পর সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা পর্যন্ত ওই সড়কের বাতি জ্বলেনি। এর মধ্যে একবার আলো জ্বলেছিল তাও মাত্র ৫ মিনিটের জন্য।

বিমানবন্দর সড়কের বাতি না জ্বালানো সরকারের একটি ষড়যন্ত্র হিসেবে আখ্যায়িত করছেন গুলশান থানা বিএনপির এক সদস্য। তিনি বলেন, আমরা যারা এসেছি, আমাদের নিজ নিজ মোবাইলের আলোতে হাত উঁচু করে ধরেছি। নেত্রী বাসায় পৌঁছানো পর্যন্ত আলো দিয়ে যাব।

সড়কে বাতি না জ্বলার জন্য সরকারকেই দায়ী করেন উপস্থিত নেতাকর্মীরা। হাতে থাকা মোবাইলের আলো জ্বালিয়ে সড়কেই মিছিল ও স্লোগান দিতে থাকেন তাঁরা। অনেক নেতাকর্মী মোটরসাইকেলের হেড লাইট জ্বালিয়ে সংহতি প্রকাশ করেন।

অপরদিকে খালেদা জিয়াকে অভ্যর্থনা জানাতে বিমানবন্দরের বাইরে বিএনপি ও ২০ দলীয় জোটের হাজার হাজার নেতাকর্মী ভিড় জমিয়েছেন। বনানীর রেডিসন ব্লু হোটেল পর্যন্ত বিরোধী জোটের নেতাকর্মীদের উপস্থিতি দেখা গেছে।

প্রসঙ্গত, ১৫ জুলাই চোখ ও পায়ের চিকিৎসার জন্য লন্ডন যান খালেদা জিয়া। সফরসঙ্গী হিসেবে একান্ত সচিব এবিএম আবদুস সাত্তার ও তাবিথ আউয়াল তার সঙ্গে লন্ডন যান।লন্ডনের মরফিল্ড হাসপাতালে চোখের চিকিৎসা ছাড়াও কয়েক দফা পায়ের চিকিৎসা করান বিএনপি চেয়ারপারসন।

খালেদা জিয়ার আগমন উপলক্ষে দুপুর থেকে ঢাকা ও ঢাকার আশপাশের এলাকা থেকে দলীয় নেতাকর্মীরা বিমানবন্দর এলাকায় জড়ো হতে শুরু করে। বিকাল নাগাদ রাজধানীর এই ব্যস্ততম বিমানবন্দর সড়কে মানুষের চাপ ও যানজট লক্ষ্য করা গেছে। এতে দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে সাধারণ মানুষদের।

Bootstrap Image Preview