Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২২ সোমবার, অক্টোবার ২০১৮ | ৭ কার্তিক ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

সন্তানের অপ্রকাশিত ভালোবাসা নিয়ে মায়ের দ্বারে নওশাবা

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৩ মে ২০১৮, ০৭:৫২ PM
আপডেট: ১৩ মে ২০১৮, ০৮:৩০ PM

bdmorning Image Preview


নিয়াজ শুভ।।

মমতার অপর নাম ‘মা’। সৃষ্টির শুরু থেকেই ‘মা’ শব্দটির সঙ্গে অদ্ভুদ এক মায়াজাল ছড়িয়ে আছে। মায়ের হাতের একটু ছোঁয়া তপ্ত হৃদয়কে শীতল করে। সন্তানের কাছে মায়ের কোন চাওয়া নেই, তবে সন্তানের হাজার বায়না পূরণ করতে মা কখনও ক্লান্তি বোধ করেন না। মা’কে ভালোবাসতে নির্দিষ্ট কোন দিনের প্রয়োজন নেই। প্রতিদিন, প্রতিমুহূর্ত, প্রতিক্ষণের ভালোবাসার নাম ‘মা’।

মা হল পৃথিবীর একমাত্র ব্যাংক। যেখানে আমরা আমাদের সব দুঃখ, কষ্ট জমা রাখি এবং বিনিময়ে নেই বিনা সুদে অকৃত্রিম ভালোবাসা। সন্তানের মুখের হাসিই মায়ের কাছে শ্রেষ্ঠ উপহার। মা নিজে কণ্টকময় পথে হাঁটতে রাজি, কিন্তু সন্তানের গায়ে ফুলের টোকাও মানতে নারাজ।

আজ বিশ্ব ‘মা’ দিবস। বিশেষ এই দিনটিতে আত্মত্যাগী কিছু মায়ের মুখে হাসি ফুটানোর দায়িত্ব নিয়েছেন জনপ্রিয় অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ। প্রাণ টেস্টি ট্রিটের আয়োজনে ‘মাকে না বলা কথা’ ক্যাম্পেইনে বিজয়ী তিনজনের বাসায় গিয়ে তাদের মা’কে নিয়ে কেক কেটেছেন তিনি। মায়েদের সরল মুখের সিগ্ধ হাসিতে নিজেও সুখ খুঁজে নিয়েছেন এই অভিনেত্রী।

এ প্রসঙ্গে নওশাবা জানান, ‘মা সম্পর্কে নতুন কিছু বলার প্রয়োজন নেই। আমি নিজেও একজন মা। সন্তানের সামান্য ভালোবাসাতেই মায়েরা সর্বোচ্চ সুখ খুঁজে নেয়। আজ আমার উপর সন্তানের অপ্রকাশিত ভালোবাসা তার মায়ের কাছে পৌঁছে দেয়ার দায়িত্ব পড়েছে। মায়েদের মুখের হাসিতে আমি নিজেও সিক্ত হয়েছি।’

নিজের মায়ের স্মৃতিচারণে নওশাবা বলেন, ‘মায়ের সাথে আমার সম্পর্কটা ভিন্ন। আমি আমার মায়ের মা এবং মা আমার মেয়ে। আমি তাকে মেয়ের মত শাসন করি। তিনিও আমার বাধ্য মেয়ে হয়ে থাকেন।’

মা দিবসে নিজের মেয়ের সঙ্গে কেমন কেটেছে নওশাবার? কিংবা মা হিসেবে তিনি আজ কি পেলেন? এমন প্রশ্নের উত্তরে মেয়ে প্রকৃতি প্রসঙ্গে তিনি জানান, ‘প্রকৃতি আমার সবকিছু। আমি একদিনের জন্য ওর মা হতে চাই না, আমি সারাজীবন ওর বিশেষ মা হয়ে থাকতে চাই।’

তিনি আরো বলেন, ‘মেয়ের কাছ থেকে উপহার পাওয়ার শেষ নেই। প্রতিদিনই প্রকৃতি আমাকে কিছু না কিছু উপহার দেয়। কখনো ফুল, কখনো নিজের হাতে আঁকা ছবি আবার কখনো তার নিজের জামা। মেয়ের এমন ভালোবাসা আমাকে প্রতিনিয়ত মাতৃত্বের স্বাদ দেয়। আমি প্রতিটি দিন এই স্বাদ নিতে চাই।’

Bootstrap Image Preview