Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৬ মঙ্গলবার, অক্টোবার ২০১৮ | ১ কার্তিক ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

এ যেন নতুন করে ভালোবাসার দিন

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ০৩:২৪ PM
আপডেট: ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ০৫:০৬ PM

bdmorning Image Preview


আহমেদ কালাম আব্দুল্লাহ।।

আজ বিশ্ব ভালোবাসা দিবস। ভালোবাসা হল পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ উপহার। ভালোবাসা দিবসে যুগলদের মনের এই উচ্ছ্বাসকে বাড়িয়ে দেবে কয়েকগুণ।

শুধু তরুণ-তরুণী নয়, নানা বয়সের মানুষই ভালোবাসার এই দিনে একসঙ্গে সময় কাটাবেন। দিনটি পশ্চিমা সংস্কৃতির অনুষঙ্গ হলেও ভ্যালেন্টাইনস ডে বা ভালোবাসা দিবসে বাঙালি মনের ভালোবাসাও যেন পায় নতুন রূপ। অনেকের মতে, ফেব্রুয়ারির এ সময়ে পাখিরা তাদের জুটি খুঁজে বাসা বাঁধে। নিরাভরণ বৃক্ষে কচি কিশলয় জেগে ওঠে। তীব্র সৌরভ ছড়িয়ে ফুল সৌন্দর্যবিভায় পরিপূর্ণভাবে বিকশিত হয় ভালোবাসা।

বসন্তের রঙ ছড়িয়ে বাতাসে আজ ভেসে বেড়াচ্ছে ভালোবাসার গান। দিনটি ভালোবাসার। হৃদয়ের গহীনে লুকিয়ে থাকা কিংবা রোজকার ভালোবাসা নতুন করে রাঙিয়ে নেওয়ার দিন আজ। ভালো তো বাসিই ভেবে এতদিন হয়নি যে কথা বলা, তিন শব্দের সেই গুরুত্বপূর্ণ কথাটি ‘আমি তোমাকে ভালোবাসি’ বলার দিন আজ। ভালোবাসা মনের এই অনুভূতি প্রকাশ পায় বছরের ৩৬৫ দিনই। তবে ভালোবাসার জন্য যে বিশেষ একটি দিন, সেটাও তো উপেক্ষা করা কঠিন।

ভালোবাসতে প্রিয় মানুষটির জন্য দিনটি বরাদ্দ রাখতে পারেন কিংবা প্রিয় মানুষটির সান্নিধ্যে কাটাতে পারেন। এক হৃদয় বিদারক প্রেমের ঘটনাকে কেন্দ্র করেই ভালোবাসা দিবসের উৎপত্তি। এ কারণেই হয়তো ভালোবাসা দিবসে প্রেমিক যুগলই বেশি উৎফুল্ল থাকে। তবে ভালোবাসার ইতিহাসটি বিদেশি সংস্কৃতির হওয়ায় তা আমাদের সংস্কৃতির সঙ্গে পুরোপুরি যায় না। তাছাড়া ভালোবাসাকে একটা নির্দিষ্ট গণ্ডিতে আবদ্ধ করাও ঠিক নয়। ভালোবাসা দিবসটাও প্রেমিক-প্রেমিকা, স্বামী-স্ত্রী, পরিবার-পরিজন সবার প্রতি ভালোবাসা প্রকাশের দিন হওয়া উচিত।

ভালোবাসা শুধু বোঝানোর জন্য নয়, মুখে বলাটাও জরুরি। তাই কাউকে অন্তরে যতই ভালোবাসুন, তারপরও মুখে একবার বলুন ‘ভালোবাসি’, দেখবেন এক অন্যরকম ভালোবাসায় দুজনার মনটাই ভরে উঠবে।শুধু ভালোবাসলেই হবে না, ভালোবাসার মানুষটির প্রতি যত্নবানও শ্রদ্ধাশীলও হতে হবে। তাকে বোঝার চেষ্টা করতে হবে। কোনো স্বার্থে নয়, ভালোবাসুন হৃদয়ের টানে।

ভালোবাসার শুরুতেই বোঝার চেষ্টা করুন, আপনার ভালোবাসার মানুষটির মানসিকতা। তার পছন্দ, রুচি, জীবনদর্শনকে সম্মান করতে চেষ্টা করুন। সেই সঙ্গে তাকে বিশ্বাস করুন, কারণ বিশ্বাস ছাড়া ভালোবাসা থাকেনা ।মমতা, আন্তরিকতা, সৌহার্দ ও প্রেমের গভীরতা নিয়ে পালন করতে পারেন ভালোবাসা দিবসটি।

Bootstrap Image Preview