Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২২ শনিবার, সেপ্টেম্বার ২০১৮ | ৭ আশ্বিন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

“বিটেককে 'বঙ্গবন্ধু টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ে’ উন্নীত করা হবে”

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৩ মার্চ ২০১৮, ১০:৪৪ PM আপডেট: ১৩ মার্চ ২০১৮, ১০:৪৪ PM

bdmorning Image Preview


আবীর বসাক, বিটেক প্রতিনিধিঃ

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে প্রতিষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজকে (বিটেক) শীঘ্রই বিশ্ববিদ্যালয়ে উন্নীত করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন টাঙ্গাইল-৪ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব হাসান ইমাম খান সোহেল হাজারী।

আজ মঙ্গলবার (১৩ মার্চ) সকালে বিটেক ক্যাম্পাস অডিটোরিয়ামে আয়োজিত বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব বলেন।

তিনি বলেন, দেশের অর্থনীতির মূল চালিকাশক্তি বস্ত্রখাত। দেশের মোট আয়ের সিংহভাগই আসে এইখাত থেকে। বর্তমানে দেশে একটি মাত্র বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে। কিন্তু বস্ত্রখাতকে আরো সমৃদ্ধশালী, গতিশীল রাখা এবং দক্ষ বস্ত্র প্রকৌশলী গড়ে তুলতে টেক্সটাইলের আরো বিশ্ববিদ্যালয় গড়ার প্রয়োজন রয়েছে। বিটেককে বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে উন্নীত করতে প্রস্তাবনা জাতীয় সংসদে উত্থাপনসহ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে এই ব্যাপারে কথাবার্তা চলছে।

অ্যাসিস্ট্যান্ট প্রফেসর কবীর হোসেন পাটোয়ারীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কালিহাতী উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মজিদ তোতা, উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি মো. নুরন্নবী সরকার, বাংলাদেশ ইউনিয়ন পরিষদ ফেডারেশনের সভাপতি ও বাংড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ, কালিহাতী উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর সাধারণ সম্পাদক আসলাম সিদ্দিকীসহ প্রমুখ।

এসময় সকল বিভাগের শিক্ষক, শিক্ষার্থী, বিভিন্ন মিডিয়ার সংবাদকর্মী, কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি সোহেল হাজারী তাঁর বক্তব্যে বর্তমান সরকারের উন্নয়নের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। তাঁর আমলে কালিহাতীতে ফায়ার স্টেশন প্রতিষ্ঠা, এলেঙ্গায় রেলস্টেশন ও ফ্লাইওভার তৈরির অনুমোদন সংসদে পাশ হবার কথা জানান। শিক্ষার্থীদের দাবির প্রেক্ষিতে সোহেল হাজারী বিটেকের উদ্বোধন, শিক্ষক সংকট দূরীকরণ, চলমান বিএসসি ডিগ্রির পাশাপাশি এমএসসি ডিগ্রি চালু, নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ প্রদানে আলাদা লাইন, পরিবহন ব্যবস্থা ও শতভাগ আবাসিক সুবিধা প্রদানের আশ্বাস দেন। তিনি তরুণ বস্ত্র প্রকৌশলীদের নিজের, পরিবার, সমাজ তথা জাতির ভাগ্যোন্নয়নে আরও বেশি বইমুখী হবার আহ্বান জানান।

পরে আমন্ত্রিত অতিথিরা বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার, ক্রেষ্ট ও সনদপত্র তুলে দেন।

Bootstrap Image Preview