Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৫ মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বার ২০১৮ | ১০ আশ্বিন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

বিয়েতে রাজি না হওয়ায় চাকু দিয়ে পুরুষাঙ্গ কাটলেন মেয়ের মা

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০ এপ্রিল ২০১৮, ০৯:৫০ PM আপডেট: ১০ এপ্রিল ২০১৮, ০৯:৫০ PM

bdmorning Image Preview


জামালপুর প্রতিনিধিঃ

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বিয়েতে রাজি না হওয়ায় মেয়ের মা ওই ছেলের পুরুষাঙ্গ কর্তন করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

গত সোমবার রাতে মামলা দায়েরের পর উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের পরমানন্দপুর গ্রাম থেকে পুরষাঙ্গ কর্তনকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

জানা গেছে, সরিষাবাড়ী উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের পরমানন্দপুর গ্রামের কালু মিয়ার স্ত্রী শাহানাজ বেগম তার মেয়ে হাজেরা খাতুন (১৬) কে বিয়ে দেয়ার জন্য একই গ্রামের তারা মিয়ার ছেলে ইউসুফ আলীর (২২) পরিবারের সাথে দীর্ঘদিন যাবত আলাপ আলোচনা চলে আসছিল।

গত বুধবার (৪ এপ্রিল) ইউসুফ আলী (২২) কে হাজেরা খাতুনের মা দাওয়াতের নাম করে রাতে তার নিজ বাড়ীতে নিয়ে যায়। ওইদিন রাতে বাড়ীতে পুরুষ শুন্য থাকায় সুকৌশলে শাহানাজ ইউসুফ আলীকে কালক্ষেপন না করে রাত্রি ১২ টার পর আদর করে তার কক্ষে ডেকে নিয়ে মেয়েকে বিয়ে করার প্রস্তাব দেয়।

প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় নিজেই ইউসুফ আলীকে অনৈতিক কাজে’র প্রস্তাব করে এবং পুরুষাঙ্গ চেপে ধরে। এ সময় ইউসুফ আলী ঘর থেকে পালাবার চেষ্টা করলে শাহনাজের হাতে থাকা চাকু দিয়ে পুরুষাঙ্গ কেটে দেয়। পরে ইউসুফ আলীর চিৎকার করলে এলাকাবাসীর সহযোগিতায় মুমুর্ষ অবস্থায় তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ঘটনায় ইউসুফ এর পিতা তারা মিয়া বাদী হয়ে সোমবার রাতে সরিষাবাড়ী থানায় পুরুষাঙ্গ কর্তনকারী শাহনাজ বেগম এর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করলে পুলিশ তাকে সোমবার রাতেই গ্রেফতার করে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই মতিউর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ভারপ্রাপ্ত) জাহাঙ্গীর আলম বলেন, পুরুষাঙ্গ কর্তনকারী শাহনাজের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের পর তাকে গ্রেফতার করে আজ মঙ্গলবার তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Bootstrap Image Preview