Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২১ বুধবার, নভেম্বার ২০১৮ | ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

আজ ইস্টার সানডে

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ০১ এপ্রিল ২০১৮, ০৯:২০ AM
আপডেট: ০১ এপ্রিল ২০১৮, ০৯:২০ AM

bdmorning Image Preview


বিডিমর্নিং ডেস্ক:

আজ ইস্টার সানডে। খ্রিষ্ট ধর্মাবলম্বীদের একটি পবিত্র দিন। খ্রিষ্টান ধর্মবিশ্বাস অনুযায়ী, এই দিনে খ্রিষ্টধর্মের প্রবর্তক যিশুখ্রিষ্ট মৃত্যু থেকে পুনরুত্থান করেছিলেন।

গুড ফ্রাইডেতে বিপথগামীরা যিশুখ্রিষ্টকে ক্রুশবিদ্ধ করে হত্যা করে। মৃত্যুর তৃতীয় দিবস অর্থাৎ রোববার তিনি জেগে ওঠেন। পুনরুত্থানের এই দিনটিই ইস্টার সানডে হিসেবে পরিচিত।

খ্রিষ্টীয় বিশ্বাস অনুযায়ী, নির্দোষ হওয়ার পরও যিশু খ্রিষ্ট মানুষকে নিষ্কলুষ করতেই তখনকার শাসকগোষ্ঠীর হাতে বন্দি ও নির্যাতিত হন।

তাদের বিশ্বাস, ঈশ্বরের পরিকল্পনা মতো, যীশু খ্রিষ্ট মানুষের পাপের ভার কমাতে ক্রুশবিদ্ধ হয়ে মৃত্যুর পর, তৃতীয় দিনে আবারো জীবিত হয়ে ওঠেন। তাদের কাছে এদিন, সমস্ত অমঙ্গলকে তুচ্ছ করে, পুণ্যপ্রতিষ্ঠা ও এর ধারাবাহিকতা বজায় রাখার প্রত্যয়ে উজ্জ্বীবিত হবার দিন।

বাইবেল বলে, ঈশ্বরের ইচ্ছা অনুযায়ী তা অনিবার্য ছিলো। শুধু নির্যাতনই নয়, সংখ্যাগরিষ্ঠ ভ্রান্ত মানুষের দাবির মুখে যিশুখ্রিষ্টকে ক্রুশবিদ্ধ করে শাসকরা, সেখানেই তাঁর মৃত্যু ঘটে।

কিন্তু মৃত্যুর পর তৃতীয় দিনে তিনি আবার জীবিত হয়ে ওঠেন, যা পুনরুত্থান হিসেবে সুবিদিত। দিনটি ছিল রবিবার- আর তাও ঈশ্বরের পরিকল্পনারই অংশ।

পুনরুত্থানের আগের ৪০ দিন খ্রিষ্ট ধর্মাবলম্বীরা উপবাস, ত্যাগস্বীকার, নিরামিষ আহার, ধ্যান, প্রার্থনা, পাপস্বীকার করে নিজেদের প্রস্তুত করেন।

খ্রিষ্ট ধর্মাবলম্বীদের মতে যিশু খ্রিষ্টের পুনরুত্থানই খ্রিষ্ট বিশ্বাসের মূল ভিত্তি।

Bootstrap Image Preview