Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২২ বৃহস্পতিবার, নভেম্বার ২০১৮ | ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

স্ত্রীর গলা কেটে পালিয়ে যাওয়া হেলালকে ২০ দিনেও ধরতে পরেনি পুলিশ

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ০৮:৩৪ PM
আপডেট: ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮, ০৮:৩৪ PM

bdmorning Image Preview


পাভেল সামাদ, বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধিঃ

দিন দুপুরে স্ত্রীর গলা কেটে পালিয়ে যাওয়া হেলালকে বিশ দিনেও গ্রেফতার করতে পারেনি বিশ্বনাথ থানা পুলিশ।

ঘটনার দীর্ঘ দিনেও হত্যাকান্ডের পেছনের প্রকৃত রহস্য উদঘাটন করতে না পারায় জনমনে নানা প্রশ্নের সৃষ্টি হয়েছে। অনেকেই পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। অভিযোগ করেছেন, ঘটনার পরপর আশপাশ এলাকায় হেলালের অবস্থান থাকলেও পুলিশ কেনো তাকে গ্রেফতার করতে পারলোনা? এ প্রশ্ন সকলের।

এদিকে, পুলিশ বলছে  দ্রুত সময়ের মধ্যে গ্রেফতারের জন্যে তাদের তৎপরতা অব্যাহত আছে। তা ছাড়া কেন, কি কারণে লুবনার গলায় ডেগার চালিয়েছে হেলাল, তা এখনও জানাতে পারেনি কেউ। ঘটনার তিনদিনের মাথায় লুবনার বড় ভাই বাদী হয়ে বিশ্বনাথ থানায় হত্যা মামলা (নং ১৪) দায়ের করেন।

এ বিষয়ে কথা হলে বিশ্বনাথ থানার ওসি শামসুদ্দোহা পিপিএম বলেন, পুলিশি চেষ্টা অব্যাহত আছে। হেলালকে গ্রেফতার করলেই খুনের রহস্য জানা যাবে।

প্রসঙ্গত, গত ২৫ জানুয়ারী বৃহস্পতিবার বিকেলে স্ত্রী লুবনা বেগমকে জবাই করে খুন করেন তার স্বামী হেলাল মিয়া। হেলাল উপজেলার জানাইয়া গ্রামের মৃত জহুর আলীর ছেলে ও লুবনা দেওকলস ইউনিয়নের কাদিপুর গ্রামের মৃত ওয়াহিদ আলীর মেয়ে। ২০০৯ সালে পারিবারিকভাবে তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন। আল-আমিন (৯) ও নাজিফা বেগম (৩) নামে তাদের দু’সন্তান রয়েছে।

Bootstrap Image Preview