Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ০৫ রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২০২৩ | ২৩ মাঘ ১৪২৯ | ঢাকা, ২৫ °সে

কাজী সালাউদ্দিনকে আর্জেন্টিনায় পাঠাতে বললেন ব্যারিস্টার সুমন

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৬:২১ PM আপডেট: ১৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৬:২১ PM

bdmorning Image Preview


প্রায় দুইশ কোটি টাকা আর্জেন্টিনা দল এবং মেসিকে নিয়ে আসা হবে জুন মাসে বাংলাদেশে। ঠিক একই সময়ে চট্টগ্রামে জাহাজ অপেক্ষা করছে, খালাস করতে পারছে না, কারণ আমরা টাকা বা ডলার পেমেন্ট করতে পারছি না। আমার মাঝে মাঝে কষ্ট হয়, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন... যেখানে আমরা হাজার হাজার মানুষকে বুট কিনে দিতে পারিনা, আমি প্রত্যন্ত এলাকায় একটা একাডেমি চালাতে গিয়ে দেখি, বুটের অভাবে ছেলেরা খেলতে পারে না। ফুটবল ফেডারেশন গত দুই বছরে কাউকে দুইটা বল দিছে ওই এলাকায়- আমার জানা নাই।

আপনারা আশ্চর্য হবেন, ২০১৬ সালে মরক্কোর সরকার দেড়শ কোটি টাকা দিয়েছিল মরক্কোর ফুটবল ফেডারেশনকে। এরপর এই বছর(গত বছর) এসে দেখা গেল, তারা বিশ্বকাপের সেমিফাইনালিস্ট হয়ে গেছে। আমি মেসির বিরোধিতা করছি না, আর্জেন্টিনা আসলে আমার ভালো লাগবে। আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক, মেসির বড় ভক্ত। কিন্তু আমার ছেলেরে মেসি না বানিয়ে সারাজীবন কি মেসিকে আনাটাই আমাদের সফলতা? আমাদের ফুটবল ফেডারেশনের যে সভাপতি, তার জীবনে একটা সফলতা- গত কিছুদিন আগে (২০১১ সালে) তিনি মেসিকে এনেছিলেন। উনি আরেকটা সফলতা করতে যাচ্ছেন- মেসিকে নিয়ে আসছেন। 

আমার মনে হচ্ছে যে ভাবটা এরকম, মেসি এসে বাংলাদেশের ঘরে ঘরে গিয়ে বলবে - ভাই আমি আসছি, সালাউদ্দিন সাহেবের দাওয়াতে আসছি। আরও আশ্চর্যের কথা শোনেন। মেসিকে আনার মতো একটা মাঠই বাংলাদেশে নাই। আর্জেন্টিনা যে খেলবে, এমন একটা মাঠ বাংলাদেশে নাই। ঢাকায় যে স্টেডিয়ামটা আছে ফুটবল খেলা হয়, সেখানে ২০২১ সালে কাজ শুরু করা হয়েছিল। ২৩ সাল পর্যন্ত এখনো মাঠ প্রস্তুত হয় নাই। আমার কথা হচ্ছে, যেখানে মাঠ প্রস্তুত নাই; সেখানে এত টাকা খরচ করে.. প্রায় দুইশ কোটি টাকা খরচ করে বাংলাদেশে একটা বিপ্লব ঘটিয়ে দিতে পারেন ফুটবলে। 

তাছাড়া এমন ক্রাইসিস মোমেন্টে ,যখন ডলার পাওয়া যাচ্ছে না, তখন ২০০ কোটি টাকা খরচ করে আর্জেন্টিনাকে আনার সিদ্ধান্ত কীভাবে আপনারা নেন এইটা আমার বিবেকে ধরে না। সকালে উঠে মনে হয়েছে, দুই-একটা কথা বলা দরকার। দেশটাকে আপনারা যেভাবে পারতেছেন... অসুস্থ মানুষ আপনারা সেইভাবে পরিচালনা করছেন। এটা হতে পারে না। এটাকে গরীবের ঘোড়া রোগ বলে। এটা ঋণ করে ঘি খাওয়ার মতো অবস্থা। নিজে খাইতে পারেন না, রোজার খাদ্যসামগ্রী আটকে আছে, জাহাজ আসতে পারতেছে না ডলারের কারণে! আর আপনি প্রায় দুইশ কোটি টাকা দিয়ে মেসিকে আনবেন, এখন কি এগুলার সময়?

অবস্থা ভালো হলে, দেশের তৃণমূল ফুটবল এগিয়ে গেলে, অর্থনৈতিক অবস্থা শক্তিশালী হলে, তখন মেসিকে আনা মানানসই হয়। এখন কী কারণে আপনারা মেসিকে আনতে যাবেন আমার বিবেকে ধরে না। তাই আমার অনুরোধ, দেশের চিন্তায় দেশের দায়িত্ব যারা পাইছেন, তারা একটু কাজ করেন। ফুটবলের দায়িত্ব যারা পাইছেন, তারা একটু কাজ করেন। এভাবে বারোটা বাজিয়ে দিয়েন না। কারণ ফুটবলকে তো একবারে জানাজার পর্যায়ে পৌঁছে দিয়েছেন। আপনারা আর কোনটা করবেন? আর্জেন্টিনার কাছে আমাদের ফুটবলটা বিক্রি করে দেন। আর যা আছে তা সহ বিক্রি করে দেন। একটা অনুরোধ, ফুটবল বিক্রি করলেও... যদি রাখতে চান রাখেন; তবে সালাউদ্দিন সাহেবরে ফুটবলসহ আর্জেন্টিনায় পাঠিয়ে দেওয়া যায় কিনা... উনি এই বয়সে আরেকটু ফুটবল খেলে আমাদের গর্বিত করুক।

- ব্যারিস্টার সুমনের ফেসবুক পেইজ থেকে

Bootstrap Image Preview