Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ০৭ শুক্রবার, মে ২০২১ | ২৪ বৈশাখ ১৪২৮ | ঢাকা, ২৫ °সে

বাংলাদেশ নিয়ে বিতর্কিত টুইট, কঙ্গনার টুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪ মে ২০২১, ০৪:০১ PM আপডেট: ০৪ মে ২০২১, ০৪:০১ PM

bdmorning Image Preview


পশ্চিমবঙ্গ থেকে মমতার জয়ধ্বনি কানে যেতেই বিতর্কিত টুইট করলেন বলিউড নায়িকা কঙ্গনা রনৌত। বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমস্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে ইঙ্গি করে একের পর এক বিতর্কিত টুইট করে যাচ্ছিলেন কঙ্গনা। এবার পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমস্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে রাবণের সঙ্গে তুলনা করে বিতর্কিত পোস্ট দেওয়ায় বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলিউডের হালে সবচেয়ে আলোচিত-সমালোচিত অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতের টুইটার অ্যাকাউন্ট।

টুইটারের নিয়মবিধি লঙ্ঘন করে পোস্ট করায় সাময়িকভাবে এ অভিনেত্রীর টুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ রেখেছে কর্তৃপক্ষ। খবর এনডিটিভি ও আনন্দবাজার পত্রিকার।

পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা নির্বাচনের ফল ঘোষণার পর সংগঠিত সহিংসতা নিয়ে একাধিক টুইট করেছিলেন তিনি। এমনকি তৃণমূলশাসিত বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসনের দাবি করেন বিজেপি সমর্থক কঙ্গনা।  কয়েকটি সংবাদমাধ্যমের দাবি— সাময়িকভাবে নয়, পাকাপাকিভাবে বন্ধ করা হয়েছে বিতর্কিত এ অভিনেত্রীর টুইটার অ্যাকাউন্ট।

নির্বাচনে বিজেপির হারের পর একাধিক টুইট ভেসে উঠেছিল কঙ্গনার ওয়ালে। প্রত্যেকটি টুইট যে তার পছন্দের দলকে সমর্থন করে লেখা, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

বিতর্কিত এই অভিনেত্রী একটি টুইটে বলেন, ‘মমতার বড় শক্তি এখন বাংলাদেশি ও রোহিঙ্গারা। লক্ষ করছি, পশ্চিমবঙ্গে হিন্দুরা আর মেজরিটিতে নেই। তথ্য নিয়ে বলছি ভারতের বাঙালি মুসলমানরা সবচেয়ে দরিদ্র আর বঞ্চিত। পশ্চিমবঙ্গ আরেকটা কাশ্মির হতে যাচ্ছে।’

নির্দিষ্ট একটি টুইটে পশ্চিমবঙ্গকে কাশ্মীরের সঙ্গেও তুলনা করেন অভিনেত্রী। তার দাবি, যেসব জায়গায় বিজেপি জয়ী হয়েছে, সেখানে কোনো রকম সহিংসতা দেখা যায়নি।  তবে বাংলায় তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পরেই শুরু হয়েছে হত্যালীলা।

‘#বেঙ্গলইজবার্নিং’ জাতীয় হ্যাশটাগও ব্যবহার করেছিলেন অভিনেত্রী। মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকেও কটাক্ষ করতে পিছপা হননি এ অভিনেত্রী। তাকে রাবণের সঙ্গে তুলনা করেও টুইট করেন কঙ্গনা। লিখেছিলেন— ‘খলনায়ক হতে গেলে পরাক্রমী রাবণের মতো হন। ঠিক যেমন মমতা দিদি’।

Bootstrap Image Preview