Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২২ বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ | ঢাকা, ২৫ °সে

ফিলিস্তিনিদের জন্য জরুরি সামগ্রী পাঠানো হবে : প্রধানমন্ত্রী

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৮ অক্টোবর ২০২৩, ১১:১২ PM
আপডেট: ১৮ অক্টোবর ২০২৩, ১১:১২ PM

bdmorning Image Preview


বাংলাদেশ থেকে ফিলিস্তিনে ওষুধ এবং জরুরি অন্যান্য জিনিসপত্র পাঠানোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে ওআইসিভুক্ত ১৪ দেশের রাষ্ট্রদূতকে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

 

তিনি বলেছেন, কোন পথে ফিলিস্তিনে ওষুধ পাঠানো হবে এখনো সেটা ক্লিয়ার না। তবে আমরা পাঠাবো। এছাড়া আগামী শুক্রবার বাংলাদেশের সব মসজিদে ফিলিস্তিনিদের জন্য দোয়া পড়ানো হবে।

বুধবার সন্ধ্যা ৭টায় ওআইসিভুক্ত ১৪ দেশের রাষ্ট্রদূত গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে জরুরি বৈঠক করেন। বৈঠক শেষে পররাষ্ট্র সচিব সাংবাদিকদের এসব কথা জানান।

তিনি বলেন, গতকাল ফিলিস্তিনের হাসপাতালে যে অ্যাটাক করেছে সেখানে বহু শিশু এবং নারী মারা গেছে। সে সম্পর্কে তারা (১৪ দেশের রাষ্ট্রদূতরা) তাদের বক্তব্য তুলে ধরেছেন। ফিলিস্তিনিদের ব্যাপারে বাংলাদেশের যেই সমর্থন আছে, সেই সমর্থন যেন অব্যাহত থাকে সেটাও চান তারা।

এ সময় বাংলাদেশের সমর্থনের কথা পুনর্ব্যক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, এই ধরনের সহিংসতা অবিলম্বে বন্ধ হওয়া দরকার। হাসপাতালের উপর যে হামলা হয়েছে তার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।

প্রধানমন্ত্রীর বরাত দিয়ে সচিব বলেন, অতি শীঘ্রই একটি শোক দিবস পালনেরও সিদ্ধান্ত হয়েছে। ক্যাবিনেটের মাধ্যমে সেটি জানানো হবে।

প্রধানমন্ত্রী আরও উল্লেখ করেন, সমস্যার মূল যে কারণগুলো রয়েছে, এগুলো বের করে বিশ্ব সম্প্রদায়কে একটা সমাধানের পথ বের করতে হবে। তার জন্য দরকার মুসলিম উম্মাহর ঐক্য।

সচিব বলেন, মুসলিম উম্মাহর ঐক্যের উপর প্রধানমন্ত্রী বার বার জোর দিয়েছেন। মুসলিম উম্মাহ ঐক্যবদ্ধ হলে ফিলিস্তিনিদের অধিকার নিশ্চিত হবে। আর ২৩৮ এবং ৩৪২ যে রেজুলেশনগুলো আছে, সেগুলো বাস্তবায়িত হয়নি।

সচিব আরও জানান, আজকে ওআইসি একটা জরুরি সভা ডেকেছে। সেখানে আমাদের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আছেন। তিনি বক্তব্য দিয়েছেন। তারা একটা রেজ্যুলেশনে এই মুহূর্তে কাজ করছে। আজকে যারা রাষ্ট্রদূত ছিলাম তারা এবং প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন। এর মাধ্যমে শক্তিশালী বার্তা যাবে বিশ্ব সম্প্রদায়ের কাছে, যে এটা চলতে পারে না। যুদ্ধ বা সহিংসতা অবিলম্বে বন্ধ হওয়া উচিত। এই সমস্যার সমাধান যেন নতুন করে করা হয়।

সচিব বলেন, আমরা সবসময় তাদের (ফিলিস্তিনি) পাশে ছিলাম, আমরা তাদের পাশে থাকব। এবারও আমরা ওষুধ এবং জরুরি সামগ্রী পাঠাবো। আন্তর্জাতিকভাবে যতগুলো ফোরাম আছে আমরা সেখানে সক্রিয় ভূমিকা রাখব।

রাষ্ট্রদূতদের ধন্যবাদ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আপনারা সবাই একসঙ্গে হয়েছেন এটাও একটা মেসেজ।

সচিব জানান, ফিলিস্তিনের সমস্যার কথা চিন্তা করে তারা (রাষ্ট্রদূতরা) সবাই একত্র হয়েছেন, এক ভয়েজে কথা বলেছেন। প্রধানমন্ত্রীর যথেষ্ট প্রশংসা করেছেন। 

Bootstrap Image Preview