Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৮ মঙ্গলবার, মে ২০২৪ | ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ | ঢাকা, ২৫ °সে

ওই ‘ললনারা’ অন্তত কিছু টাকা তো খসিয়েছে!

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১ আগস্ট ২০২১, ০২:৪১ PM
আপডেট: ১১ আগস্ট ২০২১, ০২:৪১ PM

bdmorning Image Preview


চিররঞ্জন সরকার।। 

অপ্রিয় ভাবনা

‘প্রাকৃতিকভাবে নারীর একটি যোনি আর এক জোড়া স্তন আছে। পুরুষের আছে একটি শিশ্ন। উভয়ই প্রাকৃতিকভাবে অর্জিত। এর জন্য নারী কিংবা পুরুষ কেউ-ই দায়ী নয়।’

কথা হলো, যদি এই ‘স্তন-যোনি’-র কারণে এবং এগুলো ব্যবহার করে কোনো নারী উপহার পায়, খ্যাতি পায়, বড়লোক হয়, তারকা বনে যায়, এর দায় কি তার একার?

আর এ ব্যাপারে এক শ্রেণির পুরুষের এত টাটায় কেন? আপনাদেরও তো একটা ‘দণ্ড’ আছে। সেটা ব্যবহার করে আপনিও উপহার বাগিয়ে আনুন, খ্যাতি বাড়ান, বড়লোক হন, তারকা বনে যান, আপত্তি কোথায়?

আসলে সেটা সম্ভব নয়। কারণ নারীকে ‘পণ্য’ বানানোর কারিগর যেমন পুরুষ এবং এই ‘পণ্যের’ মূল ক্রেতা ও ভোক্তাও হচ্ছে পুরুষ।

কাজেই নারীর ‘অধঃপতনের’ দায় মূলত কোনো না কোনো পুরুষের।

দুই.

একজন সাবালক মানুষ যা খুশি তাই খেতে পারে। মদ, গাঁজা, ভাং, এলএসডি, এসএমজি, কামান, টিকটিকির লেজ, হারপিক, ফিনাইল, কেরোসিন তেল, উটের মুত, ছাগলের লাদি, শেয়ালের মল যার যা খুশি। কথা হলো, এগুলো খেতে সে আরেকজনকে বাধ্য করে কিনা, এগুলো খেয়ে সে মাতলামি করে কিনা, পাবলিক নুইসেন্স সৃষ্টি করে কিনা। কোনো ভায়োলেন্স কিংবা ক্রাইম করে কি না। কিছুই যদি না করে তাহলে কে কী খাবে, কে কী পরবে তা নিয়ে অন্যের কী আসে যায়?

তিন.

মদ খাওয়া অপরাধ নয়। উপহার পাওয়াও অপরাধ নয়। অপরাধ হচ্ছে অবৈধ মাদক ব্যবসা, চোরাচালানি, ট্যাক্স ফাঁকি, খুন-ধর্ষণ, অর্থ পাচার, জমি দখল, ঘুষ, দুর্নীতি, কাউকে কিছু পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে টাকা নিয়ে সেটা তাকে না দেওয়া বা প্রতারণার মাধ্যমে অর্থ আত্মসাৎ, মিথ্যে পরিচয় তুলে ধরে সুযোগ গ্রহণ (যেমন ডা. ঈশিতা), ত্রাণ চুরি, আশ্রায়ণ প্রকল্পের ঘর বানানোতে দুর্নীতি, ব্যাংক-বিমা, শেয়ারের টাকা মেরে দেওয়া, প্রকল্পের টাকা নয়-ছয় ইত্যাদি।

আমাদের দেশে এসব অপরাধের কী বিচার হচ্ছে?

চার.

‘মদের আসরে একসঙ্গে মদ খেয়ে বড়লোকের ছেলেদের সঙ্গে ছবি তুলে সেই ছবি দিয়ে ব্ল্যাকমেইল’ করা আমাদের দেশের আপামর জনগণের কাছে কোনো গুরুত্ব নেই। জনগণ আপাতত করোনা-ডেঙ্গু, রুটি-রুজি, বেঁচে থাকা নিয়ে চিন্তিত। মদের আসর, ব্ল্যাকমেইল মোটেও তাদের কাছে প্রয়োরিটি নয়!

পুনশ্চ: পুলিশ-র‌্যাব কথিত ‘বড়লোকের ছেলেদের ব্ল্যাকমেইল করে টাকা আদায়ের’ অভিযোগ যদি সত্যি হয়, তাহলে ওই ‘ব্ল্যাকমেইলারদের’ কিডনি বেঁচে হলেও আমি কিছু টাকা দিতে চাই।

কালোটাকার মালিকের পোলাদের কাছ থেকে ওই ‘ললনারা’ অন্তত কিছু টাকা তো খসিয়েছে!

রাষ্ট্রতো তাদের কেশও স্পর্শ করতে পারে না!

চিররঞ্জন সরকার : কলাম লেখক

 

Bootstrap Image Preview