Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৯ মঙ্গলবার, নভেম্বার ২০২২ | ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ | ঢাকা, ২৫ °সে

শরীরে টমেটো সস পরকীয়া,প্রেমিকের আত্মহত্যা

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৩ আগস্ট ২০২২, ১১:২৪ AM
আপডেট: ২৩ আগস্ট ২০২২, ১১:২৪ AM

bdmorning Image Preview
ছবি সংগৃহীত


ভারতের বেঙ্গালুরুতে পরকীয়ার জেরে স্বামীকে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে এক নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকায় ওই নারীর মা এবং হত্যার জন্য ভাড়া করা তিন ব্যক্তিকেও গ্রেফতার করেছে পুলিশ।পুলিশ জানায়, ২৬ বছর বয়সী ওই নারীর নাম অনুপল্লবী। তিনি তার স্বামী নবীন কুমারের সঙ্গে পীনিয়ার কাছে দোদ্দবিদারকাল্লু এলাকায় থাকতেন।  

অনুপল্লবীর সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন হিমবন্ত কুমার। তারা দুজন মিলে ট্যাক্সি ড্রাইভার নবীন কুমারকে হত্যার পরিকল্পনা করেন। এ জন্য হরিশ, নাগারাজু ও মুগিলাম নামের ৩ জনকে ২ লাখ রুপির বিনিময়ে চুক্তি করা হয়। হত্যার আগে অনুপল্লবী ও হিমন্ত ওই ব্যক্তিদের ৯০ হাজার রুপি পরিশোধ করে। হত্যার পরেই বাকি অর্থ দেওয়া হবে বলে জানানো হয়।  পরিকল্পনা অনুযায়ী হরিশ এবং তার সঙ্গীরা নবীন কুমারকে গত ২৩ জুলাই অপহরণ করে তামিল নাড়ু রাজ্যে নিয়ে যায়। তবে তারা নবীনকে হত্যার সাহস পাচ্ছিল না। এক সময়ে তারা নবীন কুমারের বন্ধু হয়ে যায় এবং শেষ পর্যন্ত পার্টিও করে।  

কিছুদিন পর অনুপল্লবী ও  হিমবন্ত ওই অপহরণকারীদের কাছে জানতে চান কাজ শেষ হয়েছে কিনা । এরপর অপহরণকারীরা নবীনের শরীরে টমেটো সস ঢেলে ভুয়া মরদেহের ছবি পাঠায়।  এ ছবি দেখে ভয় পেয়ে যান অনুপল্লবীর পরকীয়া প্রেমিক হিমবন্ত কুমার। পরে তিনি আত্মহত্যা করেন।  

এরমধ্যে গত ২ আগস্ট নবীন কুমারের বোন ভাইকে না পেয়ে থানায় নিখোঁজ মামলা করেন। গত ৬ আগস্ট নবীন কুমার নিজেই বাড়িতে ফেরেন এবং পুলিশের কাছে সব ঘটনা খুলে বলেন।  পরে পুলিশ অনুপল্লবী ও হিমবন্তের ফোন ঘেঁটে জানতে পারেন নবীন কুমারের শাশুড়ি এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত।  

Bootstrap Image Preview