Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৭ মঙ্গলবার, মে ২০২২ | ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ | ঢাকা, ২৫ °সে

ভোট দিয়েছেন ৩৬৫ জন: বাইরে কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের জয় উল্লাস

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:২৩ PM
আপডেট: ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:৩৭ PM

bdmorning Image Preview


বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনের ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। সন্ধ্যা ৬টা ১০ মিনিটে সর্বশেষ ভোট প্রদান করেন অভিনেতা পীরজাদা শহীদুল হারুণ। তিনি এই নির্বাচনের প্রধান কমিশনারের দায়িত্বও পালন করছেন। ভোটগ্রহণ শেষে গণমাধ্যমের কাছে তথ্যটি তিনি নিজেই নিশ্চিত করেন।

পীরজাদা হারুণ বলেন, ‘৪২৮ জন ভোটারের মধ্যে ৩৬৫ জন ভোট দিয়েছেন। আমরা এতো ভোট আশাও করিনি। করোনার কারণে  সবগুলো সংগঠনকে নিয়ে নির্বাচন করতে আমাকে অনুমতি দেয়নি এফডিসি কর্তৃপক্ষ। এরপরও উৎসবমুখর পরিবেশে ভোটগ্রহণ হয়েছে।’

প্রধান নির্বাচন কমিশনার আরও জানান, ২০২২-২৪ মেয়াদের এই নির্বাচনের ভোট গণনা শুরু হবে কিছুক্ষণের মধ্যেই। প্রতি বছরই শিল্পী সমিতির ভোট গণনায় দীর্ঘ সময় লেগে যায়। এর কারণ জানতে চাইলে তিনি জানান, ভোটগুলো বেশ কয়েকটি ভাগে গণনা করতে হয়। এ কারণেই অধিক সময় লাগে।

এবার বাইরে প্রজেক্টরের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সেখানে গণমাধ্যম কর্মী থেকে শুরু করে প্রার্থী সবাই ভোট গণনা দেখতে পারবেন। তাই বিষয়টি নিয়ে কার সংশয় থাকবে না বলে আশাব্যক্ত করেছেন পীরজাদা হারুণ।

এদিকে ভোটগ্রহণ শেষে বিএফডিসির গেইটের বাহিরে কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের জয় উল্লাস করতে দেখা গিয়েছে। নিরাপত্তার কারণে অনেকেই ভিতরে ঢুকতে পারছেন না। তাই তারা বাইরে অপেক্ষা করছেন। এদিকে বেশ কিছু সূত্রে শিল্পী সমিতির নির্বাচনে কাঞ্চন-নিপুণের জয়ের খবর এসেছে। বহুল আলোচিত বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ২০২২-২৪ মেয়াদের নির্বাচন সভাপতি পদে ইলিয়াস কাঞ্চন পেয়েছেন ২২০ তার প্রতিদ্বন্দ্বী মিশা সওদাগর ১৪৫ ভোট। অপরদিকে সাধারণ সম্পাদক পদে নিপুণ পেয়েছেন ২৭০ ও জায়েদ খান ৯৫ ভোট। মোট ভোট সংগ্রহ হয়েছে ৩৬৫ টি।

শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) সকাল সোয়া ৯টায় শুরু হয় শিল্পী সমিতির নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। প্রথম ভোটটি দিয়েছিলেন এবারের সভাপতি পদপ্রার্থী ইলিয়াস কাঞ্চন। এরপর একে একে অন্য প্রার্থী ও সাধারণ ভোটাররা ভোট দেন।

শিল্পী সমিতির এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে দুটি প্যানেল। একটি গঠন করেছেন ইলিয়াস কাঞ্চন ও নিপুণ আক্তার। অন্যটিতে আছেন মিশা সওদাগর ও জায়েদ খান। দুটি প্যানেলে রয়েছে একাধিক প্রজন্মের বহু তারকা।

কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল

সভাপতি : ইলিয়াস কাঞ্চন

সহ-সভাপতি : রিয়াজ ও ডি এ তায়েব

সাধারণ সম্পাদক : নিপুণ

সহ-সাধারণ সম্পাদক : সাইমন সাদিক

সাংগঠনিক সম্পাদক : শাহানুর

আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক : নিরব

দম্পর ও প্রচার সম্পাদক : আরমান

সংস্কৃতি ও ক্রীড়া সম্পাদক : ইমন

কোষাধ্যক্ষ : আজাদ খান

কার্যকরী পরিষদের সদস্য : অমিত হাসান, শাকিল খান, নানা শাহ, আফজাল শরীফ, সাংকো পাঞ্জা, জেসমিন, কেয়া, পরীমণি, গাঙ্গুয়া, সীমান্ত।

মিশা-জায়েদ প্যানেল

সভাপতি :  মিশা সওদাগর

সহ-সভাপতি : মনোয়ার হোসেন ডিপজল ও রুবেল

সাধারণ সম্পাদক : জায়েদ খান

সহ-সাধারণ সম্পাদক : সুব্রত

সাংগঠনিক সম্পাদক : আলেকজান্ডার বো

আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক: জয় চৌধুরী

দম্পর ও প্রচার সম্পাদক: জেকে আলমগীর

সংস্কৃতি ও ক্রীড়া সম্পাদক: জাকির হোসেন

কোষাধ্যক্ষ: ফরহান

কার্যকরী পরিষদের সদস্য : রোজিনা, অঞ্জনা, সুচরিতা, অরুনা বিশ্বাস, মৌসুমী,আসিফ ইকবাল, বাপ্পারাজ, আলীরাজ, নাদের খান, হাসান জাহাঙ্গীর।  

Bootstrap Image Preview