Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৭ মঙ্গলবার, মে ২০২২ | ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ | ঢাকা, ২৫ °সে

রুপচর্চায় যেভাবে কাজ করে মুগ ডাল

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৪:২৭ PM
আপডেট: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৪:২৭ PM

bdmorning Image Preview


ত্বকের যত্নে মশুর ডালের ব্যবহারের কথাই বেশি শোনা যায়। তবে মুগ ডালও কিন্তু পিছিয়ে নেই। আজ ত্বকের যাত্নে মুগ ডালের ব্যবহার সম্পর্কেই আলোচনা করবো। আমাদের ত্বক উজ্জ্বল ও দাগহীন কোমল মসৃণ রাখতে মুগ ডালও দারুণ কাজ করে।

জেনে নিন কীভাবে মুগ ডাল ব্যবহার করতে হয়-

শুষ্ক ত্বকে-
আপনার মুখের শুষ্ক ত্বক নরম ও নমনীয় করতে মুগডাল সারারাত কাঁচা দুধে ভিজিয়ে ডালের পেস্ট করে ফেসপ্যাক ব্যবহার করতে পারেন। ১৫ মিনিট প্যাকমুখে মাখতে হবে। তারপর মুখ ধুয়ে একটা নরম তোয়ালে দিয়ে মুখ মুছে নিন।

ব্রণ দূর করতে-
মুগ ডালের একটি বৈশিষ্ট্য হচ্ছে এটি ত্বকে তেল ময়লা আটকে পড়তে দেয় না। ব্রণের সমস্যায় মুগ ডাল পেস্টের সঙ্গে ঘি মিশিয়ে আঙুলের ডগা দিয়ে ঘষে ঘষে সারা মুখে মেখে রাখুন। ১৫ মিনিট পরে মুখ ধুয়ে নিন। ফেসপ্যাকটি সপ্তাহে তিন দিন ব্যবহার করতে হবে।

মুখের লোম-
অনেকেরই মুখে লোম থাকে, যদি লোম তুলতে কেমিক্যাল ব্লিচ ব্যবহার করেন, তা ত্বকের জন্য ক্ষতিকর আর থ্রেডিং একটি কষ্টকরপদ্ধতি। এটা থেকে মুক্তি পেতে সারারাত ভিজিয়ে ডালের পেস্ট তৈরি করে সাথে কিছুটা চন্দন গুঁড়া ও কমলা লেবুর খোসা গুঁড়া মেশাতে হবে। প্রয়োজনে সামান্য দুধ মেশাতে পারেন। এই পেস্টটি কয়েকবার মুখে ম্যাসাজ করতে হবে। দুই- তিন বার ব্যবহারের পরই আপনি মুখে মুখের লোমের পরিমাণ কমতে থাকবে।

সান ট্যান-
নিয়মিত রোদে বের হলে সান ট্যান (ত্বক রোদে পোড়া) সাধারণ ঘটনা। ত্বককে সূর্যের ক্ষতিকর ইউভি রশ্মির হাত থেকে রক্ষা করতে আস্থা রাখুন মুগ ডালে। ডাল পেস্টের সঙ্গে ঠাণ্ডা দই বা আলোভেরা জেল মেশান। তারপর সেই মিশ্রণ আক্রান্ত স্থানে কিছুক্ষণ লাগিয়ে রাখুন। ১০ মিনিট পর ধুয়ে নিন। এটা সপ্তাহে ২ দিন করলেই উপকার পাবেন।

বুঝতেই পারছেন ত্বকের মোটামুটি সব সমস্যার সমাধানই আসতে পারে মুগ ডাল ব্যবহারে। ধৈর্য ধরে প্রাকৃতিক পণ্য ব্যবহার করুন, উজ্জ্বল ত্বকে সুন্দর থাকুন।

Bootstrap Image Preview