Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ০৬ মঙ্গলবার, ডিসেম্বার ২০২২ | ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ | ঢাকা, ২৫ °সে

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রিয়ালের শুভ সূচনা

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৭:৪৭ AM
আপডেট: ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৭:৪৭ AM

bdmorning Image Preview


ইসকোর নিখুঁত একটি ফ্রি-কিকে রোমার বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রিয়াল মাদ্রিদ উড়ন্ত এক সূচনা করেছে। সানতিয়াগো বার্নাব্যুতে ইসকোর ফ্রি-কিকে রিয়াল এগিয়ে যাবার পরে গ্যারেথ বেল ও মারিয়ানো ডিয়াজ আরো দুই গোল করায় ৩-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছেড়েছে স্বাগতিকরা।

টানা চতুর্থবারের মত ইউরোপের সর্বোচ্চ আসরে শিরোপা জয়ে লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নামা জুলেন লোপেতেগুইয়ের শিষ্যরা গ্রুপ-জি’তে প্রথম ম্যাচে কোচকে দারুন এক জয় উপহার দিলেন। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো বিহীন রিয়ালের এটাই ছিল চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রথম ম্যাচ। আর রোনালদোর অনুপস্থিতিতে সেট পিসের দায়িত্ব পড়ে ইসকোর ওপর। একই দিন অপর ম্যাচে ভ্যালেন্সিয়ার বিপক্ষে লাল কার্ড দেখে মাঠ ত্যাগ করতে হয়েছে রোনালদোকে। বিরতির আগে দারুন এক স্ট্রাইকে স্প্যানিশ তারকা ২৫ গজ দুর থেকে রিয়ালকে এগিয়ে দেন। গত বছর ফাইনালে লিভারপুলের বিপক্ষে গোল করা বেল ৫৮ মিনিটে লুকা মড্রিচের পাস থেকে ব্যবধান দ্বিগুন করেন। স্টপেজ টাইমে মারিয়ানো দলকে তৃতীয় গোল উপহার দেন।

ম্যাচ শুরুর চার মিনিটেই বেল গোল করার দারুন একটি সুযোগ পেয়েছিলেন। টনি ক্রুসের দারুন একটি লফটেড পাস থেকে বেলের শট পোস্টের বাইরে দিয়ে চলে যায়। এরপরপরই ইসকোর শট দারুনভাবে রুখে দেন রোমা গোলরক্ষক রবিন ওলসেন। এরপর ক্রুস ও বেল আরো দুটি সুযোগ হাতছাড়া করেন। সার্জিও রামোসের হেড দারুন দক্ষতায় ওলসেন কর্ণারের মাধ্যমে রক্ষা করেন। তবে বিরতিতে যাবার আগে আর শেষ রক্ষা হয়নি। ড্যানিয়ের ডি রোসি ইসকোকে ফাউলের অপরাধে ফ্রি-কিক পায় রিয়াল। স্প্যানিশ তারকা দুর্দান্ত এক কার্লিং ফ্রি-কিকে ওলসেনকে পরাস্ত করে ডেডলক ভাঙ্গেন।

থিবাট কর্তুয়ার পরিবর্তে কাল মাদ্রিদের গোলবার সামলানোর দায়িত্ব পড়েছিল কেইলর নাভাসের ওপর। আর কোচের আস্থার প্রতিদানও দিয়েছেন নাভাস। বিরতির পরপরই চেনগিজ আন্ডারের শট রুখে দেন নাভাস। বেলের ডিফ্লেকটেড শট ক্রসবার দিয়ে বাইরে চলে যায়। কিন্তু ৫৮ মিনিটে বেল আর হতাশ করেননি। মড্রিচের অসাধারন একটি পাস থেকে বাম পায়ের জোড়ালো শটে বেল ব্যবধান দ্বিগুন করেন। বদলী খেলোয়ার মার্কো আসেনসিও তৃতীয় গোলটি প্রায় দিয়েই ফেলেছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তাকে হতাশ হতে হয়। তবে মারিয়ানো কোন ভুল করেননি। স্টপেজ টাইমে গোল করে লিঁও থেকে ফেরার পর প্রথম ম্যাচটিই স্মরণীয় করে রাখলেন এই ডমিকিন রিপাবলিকের এই ফরোয়ার্ড।

নিজেদের সুযোগগুলো কাজে লাগাতে ব্যর্থ হওয়ায় প্রথামার্ধের প্রায় বেশীরভাগ সময়ই মনে হয়েছে মাদ্রিদ তাদের সাবেক সুপারস্টার রোনাল্ডোর অনুপস্থিতি বেশ ভালভাবেই অনুভব করছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত লোপেতেগুইয়েকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রথম ম্যাচে হতাশ করেননি ইসকো, বেল, মারিয়ানো। এই নিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গত সাতটি ম্যাচেই রিয়ালের কাছে পরাজিত হলো রোমা। ইতালিয়ান জায়ান্টরা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে তাদের শেষ ছয়টি এ্যাওয়ে ম্যাচেও জয়বিহীন রয়েছে।

Bootstrap Image Preview