Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ০৪ বৃহস্পতিবার, মার্চ ২০২১ | ২০ ফাল্গুন ১৪২৭ | ঢাকা, ২৫ °সে

২০১৯ সালের সেরা ৫ স্মার্টফোন

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:৫৪ AM
আপডেট: ২৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:৫৪ AM

bdmorning Image Preview


শেষ হতে চলেছে বছর। পুরো বছরে কোন স্মার্টফোনগুলো বাজার মাতিয়ে রেখেছে তা নিয়ে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। ২০১৯ সালে লঞ্চ হওয়া স্মার্টফোনগুলোর পারফরম্যান্স কেমন ছিল তা নিয়ে ব্যস্ত প্রযুক্তি গবেষকেরা।

চলুন দেখে নেয়া যাক, এনডিটিভি’র গেজেটস ৩৬০ এর রিভিউ অনুযায়ী চলতি বছরের সেরা ৫টি স্মার্টফোন:

১. স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাস

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাস ফোনের আকর্ষণীয় দিক হচ্ছে ছবি তুলতে এটি পেছনে রয়েছে তিনটি ক্যামেরা। ১২ মেগাপিক্সেলের একটি টেলিফটো লেন্সের সঙ্গে রয়েছে অপটিক্যাল ইমেজ স্টেবিলাইজেশন। এ ছাড়াও আছে ১২ মেগাপিক্সেল একটি ওয়াইড অ্যাঙ্গেল আর ১৬  মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা।

ক্যামেরা পাশাপাশি ফোনটির পেছনে রয়েছে একটি ভিজিএ ডেপথ সেন্সর। ফোনের সামনে রয়েছে ১০ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। স্যামসাংয়ের ফোনটিতে রয়েছে বিশাল ব্যাটারি, দুর্দান্ত ডিসপ্লে আর এস-পেন সাপোর্ট।

২. ওয়ান প্লাস সেভেন টি

ওয়ান প্লাস সেভেন টি ফোনেও রয়েছে তিনটি ক্যামেরা। আছে একটি ৪৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর। একটি ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা আর একটি টু এক্স অপটিক্যাল জুমসহ টেলিফটো ক্যামেরাও আছে ফোনটিতে। এটির বিশেষ দিক হচ্ছে, কম আলোতে ভালো ছবি তোলার জন্য রয়েছে বিশেষ নাইট মুড। সেলফি তোলার জন্য সেটের সামনে রয়েছে ১৬ মেগাপিক্সেলের একটি ক্যামেরাও।

ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমের। এর ওপরে রয়েছে অক্সিজেন ওএস সাপোর্ট। ফোনটিতে রয়েছে ৬.৫৫ ইঞ্চি ফ্লুইড অ্যামোলেড ডিসপ্লে। ফোনের ভেতরে থাকছে স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫+ চিপসেট, ৮ জিবি র‌্যাম আর ১২৮ জিবি  অথবা ২৫৬ জিবি ইউএফএস ৩.০ স্টোরেজ সিস্টেম। ফোনটির ব্যাটারি ৩৮০০ এমএএইচ। দ্রুত চার্জ করতে আছে ৩০ ওয়াটের ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট।

৩. ওয়ান প্লাস সেভেন টি  প্রো

এই ফোনের পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা আর কার্ভড ডিসপ্লে সহজেই আকর্ষণ করে নেয়। ফোনের পেছনে ৪৮ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি সেন্সরসহ রয়েছে তিনটি ক্যামেরা। আর সেলফি তোলার আছে জন্য ১৬ মেগাপিক্সেল পপ-আপ ক্যামেরা।

ওয়ান প্লাস সেভেন টি  প্রোতেও রয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমের ওপরে অক্সিজেন ওএস সাপোর্ট। ৬.৬৭ ইঞ্চি কোয়াড এইচডি প্লাস ফ্লুইড অ্যামোলেড ডিসপ্লের ফোনটিতে আছে ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট। ফোনের ভেতরে রয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫+ চিপসেট, ৮ জিবি র‌্যাম আর ২৫৬ জিবি স্টোরেজ। এই ফোনে আছে শক্তিশালী ৪,০৮৫ এমএএইচ ব্যাটারি।

৪. রিয়েলমি ৩ প্রো

রিয়েল মি ৩ প্রো ফোনটির ডিসপ্লে ৬.৩ ইঞ্চি ফুল এইচডি। আছে স্ন্যাপড্রাগন ৭১০ চিপসেট, ৬ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম আর ১২৮ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ।

ডুয়াল রিয়ার ক্যামেরার ফোনটিতে আছে ১৬ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর আর ৫ মেগাপিক্সেল ডেপথ সেন্সর। সেলফি তোলার জন্য আছে ২৫ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা। এছাড়া, ৪০৪৫ এমএএইচ ব্যাটারির এই ফোনটি দ্রুত চার্জ করার জন্য থাকছে ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট।

৫. রেডমি কে ২০ প্রো

রেডমি কে২০ প্রো ফোনের পেছনেও রয়েছে ছবি তোলার জন্য তিনটি ক্যামেরা। প্রাইমারি ক্যামেরায় রয়েছে ৪৮ মেগাপিক্সেল সেন্সর। সঙ্গে রয়েছে ১৩ মেগাপিক্সেল ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা। সেলফি তোলার জন্য আছে একটি ২০ মেগাপিক্সেল পপ-আপ ক্যামেরা।

৬.৩৯ ইঞ্চি অ্যামোলেড ফুল এইচডি প্লাস ডিসপ্লের ফোন এটি। ডিসপ্লের নিচেই রয়েছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ফোনের ভেতরে রয়েছে স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ চিপসেট, ৮ জিবি র‌্যাম আর ২৫৬ জিবি স্টোরেজ। এছাড়া ৪০০০ এমএইচ ব্যাটারির সঙ্গে রয়েছে ২৭ ওয়াটের ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট।

Bootstrap Image Preview