Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৩ শনিবার, নভেম্বার ২০১৯ | ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

ইরাকে মার্কিন ঘাঁটির পাশেই মিলল বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৯ অক্টোবর ২০১৯, ১১:৩৪ AM
আপডেট: ২৯ অক্টোবর ২০১৯, ১১:৩৪ AM

bdmorning Image Preview


মধ্যপ্রাচ্যের যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ ইরাকে অবস্থিত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি সামরিক ঘাঁটির পাশেই বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্রের সন্ধান পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার (২৯ অক্টোবর) সকালে এক বিবৃতিতে ইরাকি প্রতিরক্ষামন্ত্রী নাজাহ আল শাম্মারি গণমাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘মার্কিন সেনাদের এই ঘাঁটিটি রাজধানী বাগদাদের উত্তরাঞ্চলে অবস্থিত। 

কর্তৃপক্ষের বরাতে ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা ‘রয়টার্স’ জানায়, সোমবার (২৮ অক্টোবর) রাতে ক্ষেপণাস্ত্রটির প্রথম সন্ধান পাওয়া যায়। মূলত এর পরপরই ইরাকি আর্মি এভিয়েশন কমান্ডার এবং প্রতিরক্ষা দপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নিয়ে প্রতিরক্ষামন্ত্রী তাইজি নামের সেই মার্কিন সেনা ঘাঁটিটি পরিদর্শনে যান।

বিবৃতিতে ইরাকি মন্ত্রী বলেন, ‘বর্তমানে ঘাঁটির নিরাপত্তা ব্যবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে। এমনকি সকল সেনা সদস্যও নিরাপদে রয়েছেন। এখন পর্যন্ত সেখানে কোনো ধরনের ক্ষয়ক্ষতি কিংবা হতাহত হয়নি। তবে সেখানে অবস্থানরত সকলের নিরাপত্তার জন্য আরও বেশি সতর্ক অবস্থায় থাকা প্রয়োজন।’

এ দিকে বিশ্লেষকদের মতে, মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটিতে চলমান বড় ধরনের সরকারবিরোধী বিক্ষোভের মধ্যেই মার্কিন ঘাঁটি এলাকায় এই ক্ষেপণাস্ত্রের সন্ধান পাওয়া গেল। যদিও এবারের বিক্ষোভে এখন পর্যন্ত ২২০ জন নিহত হওয়ার দাবি করছে বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন। এতে আহত হয়েছেন আরও কমপক্ষে হাজারখানেক বেসামরিক। চলমান বিক্ষোভের সহিংসতা মোকাবিলায় বাগদাদে গত সোমবার থেকেই কারফিউ জারি করে রেখেছে প্রশাসন। 

ইরাকি সরকারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, প্রতিদিন স্থানীয় সময় মধ্যরাত থেকে সকাল ছয়টা পর্যন্ত কারফিউ বলবত থাকবে। যা পরবর্তী নির্দেশনা জারি না করা পর্যন্ত দেশ এমন অবস্থাতেই থাকবে।

অপর দিকে দেশটির নিরাপত্তা সূত্রের বরাতে ইরানি গণমাধ্যম ‘পার্সটুডে’ এবং ‘প্রেস টিভি’ জানায়, বাগদাদের উত্তরাঞ্চলে মার্কিন সামরিক ঘাঁটিতে এরই মধ্যে তিনটি মর্টারের গোলা আঘাত হেনেছে। যদিও মূল ধারার অন্যান্য আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলোতে হামলার এমন কোনো তথ্য কিংবা খবর পাওয়া যায়নি।

ইরানি মিডিয়াগুলোর দাবি, বাগদাদের উত্তরে অবস্থিত তাইজি সামরিক ঘাঁটির ভেতরে দুটি গোলা বিস্ফোরিত হয়েছে। তাছাড়া আরও একটি গোলা ঘাঁটির বাইরে পড়ে। যা এখনো বিস্ফোরিত হয়নি।

Bootstrap Image Preview