Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২১ বৃহস্পতিবার, নভেম্বার ২০১৯ | ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

সীমান্তে পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে ৬০ ভারতীয় সেনা নিহত!

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৬ অক্টোবর ২০১৯, ০৭:৫৩ PM
আপডেট: ২৬ অক্টোবর ২০১৯, ০৭:৫৩ PM

bdmorning Image Preview


পাকিস্তান সীমান্তে গত ৮ মাসে ৬০ ভারতীয় সেনা নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে পাক সামরিক বাহিনী। বালাকোটে ভারতের বিমান হামলার পর থেকে সাম্প্রতিক কাশ্মীর নিয়ে উত্তেজনায় এসব প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে। খবর দ্য ডনের।

পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ দফতরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আসিফ গফুরের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, এ বছরের ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত সীমান্ত রেখায় পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে ৬০ জনেরও বেশি ভারতীয় সেনা নিহত হয়েছে।

শনিবার এক টুইটবার্তায় আসিফ গফুর বলেন, ফেব্রুয়ারি থেকে এ সময়ের মধ্যে অসংখ্য ভারতীয় সৈন্য আহতও হয়েছে। পাকিস্তানি সেনাদের আক্রমনে ভারতীয় সেনাবাহিনীর গুরুত্বপূর্ণ বেশ কয়েকটি বাঙ্কার ধ্বংস হয়। এছাড়া সীমান্তের অনেক জায়গায় ভারতীয় বাহিনী তাদের অবস্থান পরিবর্তনেও বাধ্য হয়েছে।

পাক সেনাবাহিনীর এ মুখপাত্র আরও বলেন, পাকিস্তান খুব নৈপুণের সঙ্গে ভারতের বিমানবাহিনীর ২টি যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করেছে। যেখানে পাকিস্তানের সঙ্গে আকাশযুদ্ধের সময় আতঙ্কের কারণে নিজেদের একটি হেলিকপ্টার গুলি করে ভূপাতিত করার কথা স্বীকার করেছে ভারতীয় বাহিনী।

গত ১৪ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের স্থানীয় এক তরুণের আত্মঘাতী বোমা হামলায় ৪০ ভারতীয় জওয়ান নিহত হন। এ হামলার জন্য পাকিস্তানকে দায়ী করা হলেও দেশটি তা অস্বীকার করছে।

এরপর গত ৫ আগস্ট ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিলের মধ্য দিয়ে কাশ্মীরের স্বায়ত্তশাসনের অধিকার ও বিশেষ মর্যাদা কেড়ে নেয় বিজেপি নেতৃত্বাধীন ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার।

লাদাখ ও কাশ্মীরকে দুটি পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করতে পার্লামেন্টে বিল আনা হয়। বিরোধীরা বিষয়টি নিয়ে সরব হলেও তাদের ঐক্যবদ্ধ বিরোধিতার অভাবে লোকসভা ও রাজ্যসভা দুই কক্ষে বিলটি পাস হয়।

কাশ্মীর ইস্যুতে শুরু থেকেই যুদ্ধাবস্থা সৃষ্টি হয়েছে ভারত পাকিস্তানের মধ্যে। এরপর থেকে মাঝেমধ্যেই সংঘর্ষে জড়িয়েছে চিরবৈরী দেশ দুটি।

Bootstrap Image Preview