Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ০৬ শুক্রবার, ডিসেম্বার ২০১৯ | ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

নরসিংদীতে মরিয়ম হত্যার বিচার দাবিতে মানবন্ধন

নরসিংদী প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ২১ জুলাই ২০১৯, ০৮:৫৯ PM
আপডেট: ২১ জুলাই ২০১৯, ০৮:৫৯ PM

bdmorning Image Preview


নরসিংদীর রায়পুরায় প্রেমিকাকে পাওয়ার জন্য স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার দায়ে অভিযুক্তদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন তার মা। 

রবিবার (২১ জুলাই) দুপুরে রায়পুরার চরআড়ালিয়াবাসীর ব্যানার নিয়ে নরসিংদী প্রেসক্লাবের ও জেলা প্রশাসকের সামনে কাঠবাগিচায় বসেও এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।

মানববন্ধনে হত্যাকারী ও তার সহযোগীদের গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়। ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধনে চরআড়ালিয়া গ্রামের নারী পুরুষসহ প্রায় শতাধিক মানুষ মানববন্ধনে অংশ নেয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত তিন মাস আগে পারিবারিকভাবে চরআড়ালিয়া গ্রামের নয়ন মিয়ার ছেলে রাসেলের সঙ্গে একই গ্রামের শাহ আলমের মেয়ে মরিয়ম আক্তারের (১৯) বিয়ে হয়।

বিয়ের আগে থেকেই একই গ্রামের শেফালি বেগমের সঙ্গে রাসেলের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। বিয়ে করলেও রাসেল প্রেমিকাকে ভুলতে পারেনি। তাই পুনরায় তার প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়।

ওই সময় প্রেমিকা তাকে জানায়, বিয়ে করতে হলে স্ত্রীকে ডিভোর্স দিতে হবে, না হয় হত্যা করতে হবে। এরই জের ধরে চলতি মাসের ৩ জুলাই দুপুরে ঘুমন্ত অবস্থায় স্ত্রী মরিয়ম বেগমকে গলায় গামছা পেঁচিয়ে শ্বাস রোধ করে হত্যা করে।

পরে লাশ পার্শ্ববর্তী নদীতে ফেলে দেয়। রাসেলের গতিবিধি সন্দেহ হলে প্রতিবেশীরা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘাতক স্বামীকে আটক করে। পরে তার দেওয়া জবানবন্দির ভিত্তিতে নদী থেকে লাশ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় আটক অভিযুক্ত রাসেল পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার স্ত্রীকে শ্বাস রোধ করে হত্যার কথা স্বীকার করে।

এ ঘটনায় নিহত মরিয়মের বাবা মো. শাহ আলম বাদী হয়ে কথিত প্রেমিকা শেফালি বেগম, তার সহযোগী ইয়াছিন, নয়ন মিয়া, রাহিমা ও জয়নালকে আসামি করে রায়পুরা থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।

ঘটনার প্রায় ১৮ দিন পার হলেও পুলিশ এই মামলায় তৎপর দেখে মরিয়মের মা সংবাদকর্মী রুদ্রকে জানান, পুলিশের ভূমিকা প্রশংসা করার মত। তাই পুলিশ সদস্য আরও দ্রুত তদন্ত করে আসামীদের গ্রেফতার করলে আমি খুবই খুশি হব।

পুলিশের এই তৎপরতা দেখে আমি পুলিশ ডিপার্টম্যান্টে ধন্যবাদ জানাই। মানববন্ধন শেষে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে স্বারকলিপি প্রধান করেন।

Bootstrap Image Preview