Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৮ বৃহস্পতিবার, জুলাই ২০১৯ | ৩ শ্রাবণ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

সাফারা ইনফোটেকের ডিরেক্টর হলেন সরোজ মেহেদী

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ২৪ জুন ২০১৯, ০৬:৩৪ PM
আপডেট: ২৪ জুন ২০১৯, ০৬:৩৭ PM

bdmorning Image Preview


সাফারা ইনফোটেক এর কমিউনিকেশন ডিরেক্টর হিসেবে দায়িত্ব নিলেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক ও গবেষক সরোজ মেহেদী। তিনি প্রতিষ্ঠানটির লন্ডন অফিস, ঢাকা অফিস, মিয়ানমার অফিসের ক্লায়েন্ট ও কোম্পানীর সব ধরনের কমিউনেকশনের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. খাইরুল আলম ও সিইও তাহমিনা শারমিন এ তথ্য জানিয়েছেন।

সরোজ মেহেদী একাধারে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক, গবেষক, মিডিয়া বিশ্লেষক ও সংগঠক। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিউটের তুর্কি ভাষার শিক্ষক হিসেবে কাজ করার পাশাপাশি, ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি, বাংলাদেশ (আইইউবি) এর মিডিয়া এন্ড কমিউনিকেশন বিভাগের, সেন্টার ফর মডার্ন ল্যাঙ্গুয়েজ, বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালস (বিউপি) এর অ্যাডজাঙ্কট ফ্যাকাল্টি ও গণ বিশ্বব্যিালয়ে ভাষা-যোগাযোগ ও সংস্কৃতি বিভাগের ফ্যাকাল্টি হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। সাংবাদিকতা ছেড়ে শিক্ষকতাকে ক্যারিয়ার হিসেবে নেওয়া সরোজ মেহেদী এখনো বিভিন্ন পত্রিকায় কলাম লিখে থাকেন। দেশে-বিদেশে নানা কাজের সাথে যুক্ত রয়েছেন তিনি।

ঢাকা থেকে প্রকাশিত জাতীয় দৈনিক যুগান্তরে কর্মরত অবস্থায় তুরস্ক সরকারের স্কলারশিপ নিয়ে ২০১৪ সালে দেশটিতে পাড়ি জমান মেহেদী। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে গণযোগাযোগ ও সংবাদিকতায় স্নাতক করা মেহেদী ইস্তাম্বুল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ‘মাস্টার্স রিসার্চ প্রোগ্রাম ইন ব্যাসিক জার্নালিজমে’ প্রথম শ্রেণীতে প্রথম হোন। ২০১৮ সালে দেশে ফিরে এসে তিনি শিক্ষকতা শুরু করেন।

তুরস্কে থাকাকালীন ইউরোপীয় ইউনিয়নের ফান্ড নিয়ে ২০১৬ সালে হাঙ্গেরীর প্যানোনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইউরোপিয়ান স্টাডিজের ওপর একটি ক্রেডিট প্রোগ্রাম সম্পন্ন করেন। ২০১৭ সালে আবারো ইউরোপীয় ইউনিয়নের ফান্ড নিয়ে তুরস্কের কাদির হাস ইউনিভার্সিটি থেকে ইউরোপিয়ান স্টাডিজের ওপর আরেকটি ক্রেডিট প্রোগ্রাম সম্পন্ন করেন। দৈনিক ইত্তেফাকের বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি হিসেবে সরোজ মেহেদীর আনুষ্ঠানিক সাংবাদিকতার ক্যারিয়ার শুরু হয়েছিল।

মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে অনুষ্ঠিত ফিফথ ওয়ার্ল্ড কনফারেন্স অন মিডিয়া অ্যান্ড মাস কমিউনিকেশন (মেডকম-২০১৯) এর বাংলাদেশ প্রধান হিসেবে কাজ করেছেন মেহেদী। দায়িত্ব পালন করেছেন, মালয়েশিয়ার সানওয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত ‘কমনওয়েলথ ফিউচার ইয়ুথ সামিট-২০১৮’র এক্সিকিউটিভ মেম্বার (মিডিয়া এন্ড কমিউনিকেশন) হিসেবে।

২০১৬-২০১৭ সেশনে নরওয়ে ভিত্তিক পৃথিবীর অন্যতম বড় যুবা সংগঠন ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট ফেস্টিভ্যাল ইন ত্রনদেইম (ইসফিত) এর বাংলাদেশ ও তুরস্ক চাপ্টারের অ্যাম্বাসেডর এবং একই সময়ে সাউথ এশিয়ান ইয়ুথ অর্গানাইজেশন (সেইস) এর প্রবিশনাল মেম্বার হিসেবে কাজ করেন তিনি। বর্তমানে তিনি সেইসের কোর টিম মেম্বোর হিসেবে সক্রিয় রয়েছেন।

এছাড়াও তিনি বার্লিনভিত্তিক সংগঠন এন্টি করাপশন ইন্টারন্যাশনাল (এসিআই), ইস্তাম্বুল ভিত্তিক আন্তর্জাতিক ছাত্রদের সংগঠন ইসিস্ট, ইস্তাম্বুল মিডিয়া একাডেমি, তুরস্কের সবচেয়ে বড় রিসার্চ অর্গানাইজেশন সেটা সহ বিভিন্ন সংগঠনে সক্রিয় আছেন।

এ পর্যন্ত বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক কনফারেন্সে পেপার প্রেজেন্ট করেছেন মেহেদী। যোগ দিয়েছেন বেশকিছু আন্তর্জাতিক সামার স্কুল, ট্রেনিং প্রোগ্রাম, ইয়ুথ ক্যাম্প প্রভৃতিতে। আমন্ত্রিত হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্র, সুইজারল্যান্ডসহ ২০টিরও বেশি দেশ থেকে। জার্মানি, বেলজিয়াম, হাঙ্গেরি, ইউক্রেন, মলদোবা, রোমানিয়া, বুলগেরিয়া, তুরস্ক, মালয়েশিয়া, ভারতসহ বেশ কিছু দেশ ভ্রমণ করেছেন এ তরুণ।

বাংলাদেশ ডিজিটাল মার্কেটিং ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক কেএম সাইফুল ইসলাম খান সরোজ মেহেদীর ডিজিটঅর সেক্টরে দায়িত্ব গ্রহণকে স্বাগত জানিয়েছেন।

প্রসঙ্গত, সাফল্যের সাথে দেশে শীর্ষ প্রতিষ্ঠান, কোম্পানী, সরকারি সংস্থা, বিশ্ববিদ্যালয়, বিদেশী কোম্পানীর ইন্টিগ্রেটেড মার্কেটিং কমিউনিকেশন বা আইএমসি ও ডিজিটাল মার্কেটিং, মার্কেট রিসার্চ সেবা দিয়ে আসছে সাফারা ইনফোটেক। যুক্তরাজ্যের টেকনো আউটসোর্স ইউকে লিমিটেডের পার্টনার সাফারা ইনফোটেক।

Bootstrap Image Preview