Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৮ সোমবার, ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | ৬ ফাল্গুন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

প্রধানমন্ত্রীর সামনে মহিলা মন্ত্রীর কোমরে হাত!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক-
প্রকাশিত: ১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, ০৪:৫৪ PM
আপডেট: ১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, ০৫:৫৫ PM

bdmorning Image Preview
সংগৃহীত ছবি


সরকারি অনুষ্ঠানে মঞ্চের উপরেই মহিলা সহকর্মীর সাথে অসৌজন্যমূলক আচরণ করায় বিতর্কে জড়িয়ে পড়লেন মন্ত্রী। ভারতের ত্রিপুরা মন্ত্রিসভার সেই সদস্যের বরখাস্ত দাবি উত্থাপন করলেন বিরোধী দলীয় নেতারা।

খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উপস্থিতিতেই ত্রিপুরায় এক মন্ত্রী মন্ত্রিসভার এক মহিলা সদস্যের শরীর স্পর্শ করছেন, এমন দৃশ্যের সাক্ষী থাকল আগরতলা।

শনিবার এক অনুষ্ঠানে দেখা গেছে, রাজ্যের সমাজকল্যাণ এবং সমাজ শিক্ষা দফতরের মন্ত্রী সান্ত্বনা চাকমার কোমর ধরে টানছেন তার পুরুষ সহকর্মী। সেই ঘটনার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়ার পরে রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল বামেরা দাবি করেছেন, মনোজকান্তি দেবের মন্ত্রিত্ব অনতিবিলম্বে মন্ত্রী সভা থেকে প্রত্যাহার করতে হবে।  কোন যুক্তিতে ওই  মন্ত্রীকে বরখাস্ত করা হবে না তাও তারা জানতে চান।

মন্ত্রী মনোজকান্তিকে এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে তিনি পুরো বিষয়টিকেই অস্বীকার করেন। অন্যদিকে, ত্রিপুরায় ক্ষমতাসীন বিজেপির দাবি, গোটা বিতর্ক স্রেফ বামেদের তরফে অপপ্রচার করে চরিত্রহননের চেষ্টা করা হচ্ছে।

ত্রিপুরার বাম কনভেনার বিজন ধর সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, মনোজকান্তি দেবকে অবিলম্বে বরখাস্ত করা উচিত। মঞ্চে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবদের সামনে এমন আচরণ অত্যন্ত নিন্দনীয় ও নেক্কারজনক।

বিজেপির তরফে দলীয় মুখপাত্র নবেন্দু ভট্টাচার্য্য বলেন, ‘বাম দলগুলোর আপাতত বিজেপির বিরুদ্ধে অযথা বিষয় নিয়ে ইস্যু করা ছাড়া আর কোনও কাজ নেই। তাই তারা ত্রিপুরার মন্ত্রীদের চরিত্র হননের চেষ্টায় নেমেছে।’

Bootstrap Image Preview