Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২২ মঙ্গলবার, অক্টোবার ২০১৯ | ৬ কার্তিক ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

ছাগলে বেগুন গাছ খাওয়ায় প্রতিবেশীকে খুন

সৈয়দ রোকনুজ্জামান রোকন, নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ
প্রকাশিত: ২৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৮:২৭ PM
আপডেট: ২৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৮:২৭ PM

bdmorning Image Preview
প্রতীকী


দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে পল্লীতে ছাগলে বেগুনের গাছ খাওয়াকে কেন্দ্র করে ১ জনকে পিটিয়ে হত্যা ও ১ জনকে গুরুতর আহত করার ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার (২৬ ডিসেম্বর) সকালের দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানা যায়।

উপজেলার ৮নং মাহমুদপুর ইউপি চেয়ারম্যান তানভির আহমেদ রহিম বাদশা জানান, কড়াইবাড়ি (সৈয়দপুর) গ্রামের লাভলু মিয়ার বেগুন ক্ষেতে একই গ্রামের মৃত আবুল মিয়ার পুত্র মকবুল হোসেন (৫৫) এর ছাগল বেগুন গাছ খাওয়াকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের বুধবার সকালে মারামারি সৃষ্টি হয়।

এ ঘটনায় লাভলু মিয়ার লোকজনেরা বাড়ি থেকে মকবুল হোসেন ও তার ছেলে এরশাদুল ইসলামকে ডেকে নিয়ে এসে লাঠি দিয়ে বেদম মারপিট করে। এক পর্যায়ে মকবুল হোসেন (৫৫) ঘটনাস্থলেই মৃত্যুবরণ করেন।

অন্যদিকে, তার ছেলে এরশাদুলকেও এলপাতাড়ি মারপিট করলে সে ঘটনাস্থলে সংজ্ঞা হারিয়ে পড়ে যায়। পরে স্থানীয়রা এরশাদুলকে নবাবগঞ্জ সাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন ভর্তি করায়।

থানায় সংবাদ দিলে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুব্রত কুমার সরকার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. সামসুল আলম লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে মকবুলের মরাদেহ থানায় নিয়ে আসেন। এ ঘটনায় মকবুল হোসেনর ছেলে শফিকুল ইসলাম বাদি হয়ে লাভলুসহ তার অনুসারীদের বিরুদ্ধে নবাবগঞ্জ থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) সামসুল আলম জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হবে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসলেই মকবুল হোসেনের মৃত্যুর প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

ইউপি চেয়ারম্যন তানভির আহমেদ রহিম বাদশা জানান, এ ঘটনায় প্রকৃত অপরাধীরাই যেন আইনে কাঠগড়ায় দাড়ায়। এ দাবি তার।

Bootstrap Image Preview