Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৬ সোমবার, ডিসেম্বার ২০১৯ | ২ পৌষ ১৪২৬ | ঢাকা, ২৫ °সে

মাধবপুরে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

আজিজুল ইসলাম সজিব, হবিগঞ্জ প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ১০ নভেম্বর ২০১৮, ০১:৪৭ PM
আপডেট: ১০ নভেম্বর ২০১৮, ০১:৪৭ PM

bdmorning Image Preview


হবিগঞ্জের মাধবপুরে লাকী আক্তার (২৭) নামে এক মালয়েশিয়া প্রবাসীর স্ত্রীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। নিহত লাকীর বাবার দাবী শ্বশুরবাড়ির লোকজন তাকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করেছে।

শুক্রবার (৯ নভেম্বর) সন্ধ্যায় মাধবপুর উপজেলার কমলপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত লাকী আক্তার ওই গ্রামের ফরিদ মিয়ার স্ত্রী এবং একই গ্রামের ফয়েজ মিয়ার কন্যা।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে রাতে ৮টায় নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে। পরে  লাশ ময়না তদন্তের জন্য হবিগঞ্জ জেলা সদর আধুনিক হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

এ বিষয়ে  মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) চন্দন কুমার চক্রবর্তী জানান, নিহতের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে স্বামীর বাড়ির লোকজন জানান লাকী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। তবে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের মরদেহ ঝুলন্ত ঝুলন্ত অবস্থায় পাইনি। তবে এখন কিছু সঠিক ভাবে বলা যাচ্ছে না।

নিহতের মৃতদেহ ময়নাতদন্তেও জন্য হবিগঞ্জ জেলা সদর আধুনিক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে কিভাবে মৃত্যু হয়েছে তার সঠিক কারণ জানা যাবে।

 এদিকে নিহত লাকীর বাবা ফয়েজ মিয়া জানান, একই গ্রামের ফজলু মিয়ার ছেলে ফরিদ মিয়ার সঙ্গে তার মেয়ের বিয়ে দেন। বিয়ের কিছুদিন পর থেকেই শশুর বাড়ির লোকজন লাকীকে নানাভাবে মানসিক ও শারিরীক নির্যাতন করতো। গত শুক্রবার সকালেও তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়।

নিহত লাকীর বাবা ফয়েজ মিয়ার বলেন, স্বামীর বাড়ির তার মেয়েকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করে এখন তারা আত্মহত্যা বলে নিজেদেরকে বাচাতে চাইছে।

Bootstrap Image Preview