Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৪ বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বার ২০২০ | ৯ আশ্বিন ১৪২৭ | ঢাকা, ২৫ °সে

লোহার আগুনে জিহ্বা দিয়ে ‘অগ্নিপরীক্ষা’ দিতে হয় তাদের!

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৭ অক্টোবর ২০১৮, ১০:২৭ PM
আপডেট: ১৭ অক্টোবর ২০১৮, ১০:২৭ PM

bdmorning Image Preview
সংগৃহীত ছবি


হিন্দু রীতিতে একসময় স্ত্রীর সতীত্ব প্রমাণ করতে অগ্নিপরীক্ষা দিতে হতো। রামায়ণে নিজের সতীত্ব প্রমাণ করার জন্য অগ্নিপরীক্ষা দিয়েছিলেন সীতা। কিন্তু আধুনিক যুগে এসে তা বিলুপ্ত হয়েছে।

তবে সেই রীতি এখনো অন্য সমাজে প্রচলিত রয়েছে। এখনো সেই বর্বর অগ্নিপরীক্ষা দিতে হয় মিসরের একটি বেদুইন সমাজে। অসামাজিক কাজের বিচারের জন্য অভিযুক্তের এই পরীক্ষা নেয়া হয়।

লোহার তৈরি হাতা, চামচ বা অনুরূপ কোনো পাত্র আগুনে গরম করা হয়। টকটকে লাল করার পর সেই গরম পাত্র তিনবার ছোঁয়ানো হয় অভিযুক্তের জিভে। যদি জিভ পুড়ে যায় তাহলে অভিযুক্তকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। অর্থাৎ অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ সত্যি। অন্যথায় সে নির্দোষ।

শিরের একটি বেদুইন সমাজে প্রচলিত এই বিচার প্রক্রিয়ার নাম 'বিশা'। পুলিশে অভিযোগ জানিয়ে আদালতের মাধ্যমে সমস্যার নিষ্পত্তি হতে অনেক সময় লাগে। তাই দ্রুত সুরাহা পেতে এখনো এই পদ্ধতিতেই ভরসা বেদুইনদের।

Bootstrap Image Preview