Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৫ বৃহস্পতিবার, নভেম্বার ২০১৮ | ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

এসিডি'র সুন্দলপুর স্যোশালাইজেশন সেন্টার পরিদর্শন করলেন, এমপি ফারুক চৌধুরী

আব্দুল বাতেন, গোদাগাড়ী প্রতিনিধিঃ
প্রকাশিত: ১৬ অক্টোবর ২০১৮, ১০:৫১ PM
আপডেট: ১৬ অক্টোবর ২০১৮, ১০:৫৩ PM

bdmorning Image Preview


গোদাগাড়ীর কাকনহাট পৌরসভায় এ্যাসোসিয়েশন ফর কম্যুনিটি ডেভেলপমেন্টের (এসিডি) উদ্যোগে ও সেভ দ্য চিলড্রেনের সহযোগিতায় প্রতিষ্ঠিত সুন্দলপুর স্যোশালাইজেশন সেন্টার পরিদর্শন করেন রাজশাহীর ১ নং আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ও সাবেক শিল্প প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব ওমর ফারুক চৌধুরী। 

মঙ্গলবার (১৬ অক্টোবর) বিকেলে পরিদর্শনকালে তাঁর সাথে ছিলেন, গোদাগাড়ী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ বদিউজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল রফিদ, আদিবাসী মুক্তি মোর্চার সভাপতি যোগেন্দ্রনাথ সরেন, রাজশাহী বিভাগীয় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী গবেষণা কর্মকর্তা বেঞ্জামিন টুডু, গোদাগাড়ী তারগানা বাইসীর সভাপতি বাবুলাল মুর্মু, চব্বিশনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক বিপ্লব বাগচী ও আদিবাসী লেখক গ্যাব্রিয়েল হাসদা।

এসময় এসিডি'র পক্ষে উপস্থিত ছিলেন, প্রজেক্ট কোর্ডিনেটর মোঃ আব্দুর রাজ্জাক ও মনিরুল ইসলাম পায়েল এবং প্রজেক্ট অফিসার এস. এম আহসান উল্লাহ সরকার।

সুন্দলপুর স্যোশালাইজেশন সেন্টার পরিদর্শনকালে শিশু সুরক্ষা ও শিশুদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় এসিডি'র এ ধরণের কার্যক্রম দেখে মাননীয় সংসদ সদস্য সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং এই এলাকার পিছিয়ে পড়া ও আদিবাসী শিশুদের অধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য এই ধরণের আরও কয়েকটি স্যোশালাইজেশন সেন্টার প্রতিষ্ঠার জন্য এসিডিকে আহবান জানান।

সেন্টার পরিদর্শনের শুরুতেই শিশুক্লাবের সদস্যরা মাননীয় সংসদ সদস্যকে ফুল দিয়ে বরণ করে। 

এসিডি এবং সেভ দ্য চিলড্রেন বিগত ২০১৭ সালের শুরু থেকে রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার দেওপাড়া, মাটিকাটা ও গোগ্রাম ইউনিয়ন, গোদাগাড়ী ও কাকনহাট পৌরসভা এবং রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ১৯ ও ২৩ নং ওয়ার্ডের পিছিয়ে পড়া ও অধিকার বঞ্চিত শিশুদের সুরক্ষা, শিক্ষা ও খেলাধুলার মাধ্যমে তাদের অনিরাপদ স্থানান্তর প্রতিরোধ এবং তাদের অধিকার সমুন্নত রাখার প্রত্যয় নিয়ে 'আমি খেলি, আমি শিখি এবং আমি নিরাপদ' এই শ্লোগানকে সামনে রেখে গুড কজ ক্যাম্পেইন (জিসিসি) প্রকল্প অত্যন্ত সফলতার সাথে বাস্তবায়ন করে আসছে। 

Bootstrap Image Preview