Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ১৯ শুক্রবার, অক্টোবার ২০১৮ | ৪ কার্তিক ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

বিদ্যুৎ অফিসের গাড়ি চালকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার, আটক ৭

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০:৩৮ AM
আপডেট: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০:৩৮ AM

bdmorning Image Preview
প্রতীকী ছবি


ডোমার (নীলফামারী) প্রতিনিধিঃ

নীলফামারীর ডোমার বিদ্যুৎ অফিসের গাড়ি চালক স্বাধীন ইসলামের (২২) গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সন্ধায় উপজেলার আনসার-ভিডিপি উন্নয়ন ব্যাংকের উপর তলায় তার শয়নকক্ষ থেকে গলাকাটা লাশটি উদ্ধার করা হয়।

জানা যায়, স্বাধীন ইসলাম রংপুর কারমাইকেল কলেজ রোডের মোঃ বাবু ইসলামের ছেলে। সে ডোমার বিদ্যুৎ অফিসের নির্বাহী পরিচালকের গাড়ীর ড্রাইভার।

ডোমার বিদ্যুৎ বিতরণ বিভাগের নির্বাহী পরিচালক মো. সাইফুল মন্ডল জানান, উপজেলা পরিষদ মাঠ সংলগ্ন আনসার-ভিডিপি উন্নয়ন ব্যাংকের উপরের তলার একটি কক্ষে সে ভাড়া থাকতো। সকাল থেকেই তার ফোন বন্ধ অফিসেও আসেনি। বিকালে কাজের প্রয়োজনে তার বাড়িতে আমার অফিসের লোকদের পাঠায় দেই তার খোঁজে।

পরে অফিসের লোকজন তার কক্ষের সামনে তার স্যান্ডেল দেখতে পায়। তবে রুমটি বাইরে থেকে তালাবদ্ধ ছিল। অফিসের লোকজন তাকে ডাকলেও ভিতর থেকে কোন শব্দ না পেয়ে আমাকে বিস্তারিত জানালে আমি পুলিশে খবর দিলে থানার এসআই মাসুদ এসে বাইরে থেকে তাকে ডেকে কোন প্রতুত্তর না পেয়ে তার শয়ন কক্ষের একটি জানালার শিকল ভাঙলে দেখা যায় গলায় কাপড় পেচানো রক্তাক্ত মৃতদেহ পরে রয়েছে। দেয়ালে রক্তের ছাপ ও ডানহাতটি বালিশের নিচে। তবে কি কারণে এমন ঘটনা ঘটতে পারে বিষয়টি তিনি বলতে পারেননি।

পরে সেখানে সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) জয়ব্রত পাল ঘটনা স্থলে যান। প্রাথমিকভাবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বাড়ির মালিক আশিকুর রহমান, বিদ্যুৎ অফিসের সাহায্যকারী মাহাফুজ, আবুল কালাম আজাদ, বীল বিতরণকারী অর্পন, সাঈদ, ড্রাইভার সোহাগ, নীল মটস্-এর কর্মচারী গৌতমসহ ৭ জনকে আটক করে পুলিশ।

এসআই মাসুদ হত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, আমি এসে একটি জানালার শিকল খুলে দেখতে পাই গলায় কাপড় পেচানো রক্তাক্ত মৃতদেহ।

ডোমার থানার অফিসার্স ইন চার্জ মোঃ মোকছেদ আলী মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য জেলার মর্গে প্রেরণ করা হবে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

Bootstrap Image Preview