Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২৪ সোমবার, সেপ্টেম্বার ২০১৮ | ৯ আশ্বিন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

বিজেপি সেক্রেটারির ওয়েবসাইট হ্যাক করে পাল্টা জবাব দিলো 'সাইবার ৭১'

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:৩২ PM আপডেট: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:৩২ PM

bdmorning Image Preview


ক্ষমতাসীন দল বিজেপির সাধারণ সম্পাদক রাম মাধবের ওয়েবসাইট হ্যাক করেছে বাংলাদেশি সাইবার সংগঠন 'সাইবার ৭১'। আসামে এনআরসি তালিকা থেকে বাদ পড়াদের বাংলাদেশে পাঠানোর ঘোষণার প্রতিবাদে তার ওয়েবসাইট হ্যাক করা হয়েছে। সোমবার রাত ১১টার দিকে সাইবার ৭১ এর অফিসিয়াল ফেসবুকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সাইবার ৭১ জানিয়েছে, 'অনিবন্ধিত ভারতীয়দের আসাম থেকে বিতাড়িত করে বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেয়ার হুমকির প্রতিবাদে বিজেপি নেতা রাম মাধবের ওয়েবসাইটে 'সাইবার ৭১' এর আক্রমণ। প্রতিবাদ চলছে, প্রতিবাদ চলবেই।'

এর আগে সোমবার সন্ধ্যায় দিল্লিতে এনআরসিবিষয়ক এক আলোচনাসভায় বিজেপির প্রভাবশালী সাধারণ সম্পাদক রাম মাধব এনআরসি থেকে বাদ পড়াদের বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেয়ার ঘোষণা দেন।

তিনি বলেন, 'এখানে আমাদের পরিকল্পনা হলো তিনটি ডি-ডিটেক্ট, ডিলিট ও ডিপোর্ট। অর্থাৎ প্রথম ধাপে অবৈধ বিদেশি কারা, তাদের শনাক্ত করা হবে (ডিটেক্ট)- যেটা এখন চলছে।'

'তারপর ভোটার তালিকা থেকে তাদের নাম বাদ দেয়া ও বিভিন্ন সরকারি সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত করার প্রক্রিয়া শুরু হবে (ডিলিট)। আর তারপর আমরা তাদের বাংলাদেশে ডিপোর্ট করব!'

এর আগে বিজেপির শীর্ষ স্তরের কোনো নেতাই এত স্পষ্টভাবে এনআরসি থেকে বাদপড়া লোকজনকে বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেয়ার কথা বলেননি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন আসামের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোয়ালও। তিনি মন্তব্য করেন, অবৈধ বিদেশিদের খুঁজতে আসামের পর এবার সারা ভারতেই এনআরসি প্রক্রিয়া চালু করা উচিত।

রাম মাধব যখন ডিপোর্ট করার কথা বলেন, মুখ্যমন্ত্রী সোনোওয়াল-সমেত সভায় উপস্থিত বিজেপির শীর্ষ নেতারা ও শ্রোতা-দর্শকরা টেবিল চাপড়ে ও তুমুল করতালিতে সেই মন্তব্যকে স্বাগত জানান।

বস্তুত রাম মাধব 'অবৈধ বিদেশিদের যেভাবে বাংলাদেশে ডিপোর্ট করার পরিকল্পনা ব্যাখ্যা করেছেন, তাতে পরিষ্কার বিজেপির মধ্যে বিষয়টি নিয়ে ইতিমধ্যেই অনেক ভাবনাচিন্তা হয়েছে।

রাম মাধব বলেন, বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গাদের দিকেই তাকান না। বাংলাদেশ নিজেরাই তো লাখ লাখ রোহিঙ্গাকে মিয়ানমারে ফেরত পাঠাতে সে দেশের সঙ্গে সক্রিয় আলাপ-আলোচনা চালাচ্ছে। সৌদি আরবও সে দেশে থাকা অবৈধ পাকিস্তানি, বাংলাদেশি বা ভারতীয়দের মাঝে মাঝেই ফেরত পাঠায়। কাজেই ডিপোর্ট করার মধ্যে অন্যায় কিছু নেই।'

তিনি বলেন, 'অনেকে হয়তো প্রশ্ন তুলবেন, বাংলাদেশ আমাদের বন্ধুপ্রতিম দেশ, সেখানে কীভাবে আপনি এই লোকগুলোকে ডিপোর্ট করবেন? আরে, বন্ধু তো আপনাদের সবাই - তাই বলে কি তাদের যেসব লোকজন অবৈধভাবে এখানে আছেন তাদের কি ফেরত পাঠানো যাবে না?

Bootstrap Image Preview