Bootstrap Image Preview
ঢাকা, ২০ বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বার ২০১৮ | ৫ আশ্বিন ১৪২৫ | ঢাকা, ২৫ °সে

কুকের বিদায়ী টেস্টে ধুঁকছে ভারত

বিডিমর্নিং ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৩:২৫ AM আপডেট: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৩:৩১ AM

bdmorning Image Preview


ওভাল টেস্টের চতুর্থ দিনটি বলা যেতে পারে ছিল অ্যালিস্টার কুকের। ক্যারিয়ারের শেষ ইনিংসে ঝকঝকে ১৪৭ রান করে গেলেন তিনি। আর তারপর ইংরেজ পেসার ব্রড ও অ্যান্ডারসনের দাপটে একসময় ২ রানে ৩ উইকেট পড়ে যায় ভারতের। সেখান থেকে কিছুটা হলেও ভরসা জুগিয়েছেন রাহুল ও রাহানে ভারত এখনও ৪০৬ রানে পিছিয়ে। চতুর্থ দিনের শেষে ভারত দ্বিতীয় ইনিংসে তিনটি উইকেট হারিয়ে ৫৮ রান তুলেছে।

সেমবার ২ উইকেট ১১৪ রান নিয়ে এদিন খেলা শুরু করেছিল ইংল্যান্ড। লাঞ্চের আগেই অ্যালিস্টার কুক শেষ ইনিংসে শতরান সম্পূর্ণ করেন। তাঁর সঙ্গে ৯২ রানে অপরাজিত ছিলেন ইংরেজ অধিনায়ক জো রুটও। শেষ পর্যন্ত কুক ১৪৭ ও রুট ১২৫ রান করেন। দুজনকেই তুলে নেন নবাগত হনুমা বিহারী। অবশ্য ততক্ষণে ইংল্যান্ড স্কোরবোর্ডে রানের পাহাড় গড়ে ফেলে। যার উপর ভিত্তি করে ইংল্যান্ড ওভাল টেস্ট জিতে সিরিজ ৪-১ ফলে জেতার দিকে ভীষণভাবে ঝুঁকে রয়েছে।

কুকের উইকেট পড়ার পর বাকি ইংরেজ ব্যাটসম্যানরা দ্রুত রান তোলার দিকে মন দিয়েছিলেন। শেষ অবধি ইংল্যান্ডের ইনিংস শেষ হয় ৪২৩ রানে। অবশ্য তাদের অলআউট করতে পারেনি ভারত। চা বিরতির কিছু পরে স্য়াম কুরানের উইকেট পড়তেই ইনিংস ডিক্লেয়ার করে দেয় ইংল্যান্ড। প্রথম ইনিংসের লিড ভারতের সামনে ৪৬৪ রানের লক্ষ্যমাত্রা ছুঁড়ে দেয় তারা। হনুমা বিহারী ও জাদেজা ৩টি করে উইকেট নেন। এছাড়া প্রথম ইনিংসে উইকেট শূন্য থাকা শামি আরও ২টি উইকেট পান।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই পরপর ধাক্কা খেয়ে রীতিমতো ধুঁকছিল ভারত। শিখর ধাওয়ান আরও একবার হতাশ করেন। অ্যান্ডারসনের বলে তিনি মাত্র ১ রানেই প্যাভিলিয়নে ফেরেন। এর তিন বল পরেই আবার উইকেট পড়ে ভারতের। অন্যতম ভরসা চেতেশ্বর পুজারা কোনও রান করার আগেই এলবিডব্লু হন। অ্যান্ডারসন স্পর্শ করেন টেস্টে পেসার হিসেবে গ্লেন ম্যাকগ্রার সর্বোচ্চ ৫৬৩ উইকেট শিকারের রেকর্ড। ভারতের স্কোর দাঁড়ায় ১ রানে ২ উইকেট।

ক্রিজে আসেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। পরের ওভারে রাহুল একরান নিলে স্ট্রাইক পান বিরাট। প্রথম বলটাই অফ স্টাম্পের একটু বাইরে আউঠসুই, রেখেছিলেন স্ট্রুয়ার্ট ব্রড। গোটা সিরিজের জুড়ে এই রকম হাতছানিকে এড়িয়ে গিয়েছেন বিরাট। কিন্তু শেষ ইনিংসে আর লোভ সামলাতে পারেননি। ব্যাট চালান। ব্যাটের কানা ছুঁয়ে বল চলে যায় উইকেটের পিছনে স্টোকস-এর হাতে। ফলে সিরিজে বিরাটের উইকেট পাওয়া হল না অ্যান্ডারসনের। ভারতের স্কোর দাঁড়ায় ৩ উইকেট হারিয়ে ২।

এরপর অ্যান্ডারসনের আরও একটি ইনসুইং ডেলিভারি কেএল রাহুলের প্যাডে লেগেছিল। ইংরেজদের আবেদনে মাঠের আম্পায়ার সাড়া দেননি। ইংরেজরা রিভিউ নেয়। দেখা যায় বলের উচ্চতা বেশি রয়েছে। বেঁচে যান রাহুল। এছাড়া বাকি সময় রাহুল ও তাঁর সঙ্গী আজিঙ্কা রাহানেকে জমাটই লেগেছে। ৩ উইকেটে ২ রান থেকে স্কোর তাঁরা ৩ উইকেটে ৫৮ তে নিয়ে গিয়েছেন।

৫১ বলে ৪৬ রান করে অপরাজিত আছেন কেএল রাহুল। অপরদিকে ৪৭ বল খেলে ১০ রানে অপরাজিত আছেন রাহানে। ভারতের পক্ষে চতুর্থ দিনে ম্যাচ জয়ের কোনও আশা নেই। পঞ্চম দিনের পিচে সারাদিন ব্যাট করে ভারত এই ম্যাচ বাঁচাতে পারে কিনা সেটাই এখন দেখার।

Bootstrap Image Preview