আমরা না চাইলেও আদালতের নির্দেশে খালেদা জিয়া কারাগারে: নাসিম

প্রকাশঃ এপ্রিল ১৬, ২০১৮

বিডিমর্নিং ডেস্ক-

কারাবন্দী বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে মিথ্যাচার করবেন না। বেগম জিয়াকে সর্বোত্তম চিকিৎসা করা হচ্ছে বলে জানান স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

সোমবার সচিবালয়ে চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

কারাবন্দী থাকা অবস্থায় জেল কোডের বাইরে কাউকে চিকিৎসা দেয়া যায় না জানিয়ে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ‘বেগম জিয়ার সর্বোত্তম চিকিৎসা করা হচ্ছে ও করা হবে। তার যেকোন অসুবিধা দেখা হবে। তবে জেল কোডের বাইরে গিয়ে চিকিৎসা করা সম্ভব নয়।’

তিনি বলেন, ‘আমরা আশ্বস্ত করতে চাই, বেগম জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে কোনো অবহেলা করা হচ্ছে না, করার প্রশ্নই উঠে না।’ ‘তিনি একজন রাজনৈতিক নেতা, একটি দলের চেয়ারপার্সন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী, তার প্রতি সব সময়ই আমাদের সদয় দৃষ্টিভঙ্গি আছে। তিনি বন্দী অবস্থায় কষ্ট না পান, চিকিৎসা ক্ষেত্রে কষ্ট না পান সেটা আমরা সরকার লক্ষ্য রাখছি।’

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপিকে বলব খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে অহেতুক মিথ্যাচার করবেন না। অহেতুক দোষারোপ করবেন না সরকারকে। আমাদের যা করণীয় তা আমরা করছি।’

তিনি বলেন, ‘বিএনপি অহেতুক রাজনীতি করে, সব বিষয় নিয়ে রাজনীতি করে। সবক্ষেত্রে বিভ্রান্তি সৃষ্টি করবেন না, গুজব ছড়াবেন না দয়া করে। বেগম জিয়া নিজেই চিকিৎসার জন্য ধন্যবাদ দিয়েছেন, তিনি (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে) এসেছেন। চিকিৎসা নিয়েছেন, ওষুধ খাচ্ছেন। তিনি ভালো আছেন।’

বিভ্রান্তি না ছড়িয়ে খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য বিএনপির নেতাদের আইন-আদালতের দিতে যত্মবান হওয়ার পরামর্শ দিয়ে নাসিম বলেন, ‘আইনজীবীদের প্রস্তুত করুন। তাকে কেন তারা জেলে রেখেছে? আইন-আদালতের মাধ্যমে বের করে নিয়ে আসে না কেন? এই কাজটা তারা করুক।’

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আদালতের নির্দেশ তিনি (খালেদা জিয়া) দুর্ভাগ্যজনকভাবে আজ কারাগারে আছে। আমরা কেউ না চাইলেও আদালতের নির্দেশে তিনি কারাগারে আছেন। আশা করি তিনি আদালতের নির্দেশেই মুক্তি পাবেন।’

‘যেহেতু তিনি রাষ্ট্রের হেফাজতেই কারাগারে আছেন এজন্য রাষ্ট্রের দায়িত্ব তাকে নিয়মিত ব্যবস্থা অব্যাহত রাখা ও তাকে সুস্থ রাখা। কিন্তু একটি বিষয় অত্যন্ত দুঃখজনক, মাঝে মধ্যেই গতকালও দেখলাম বিএনপি নেতারা বলেছেন, আমাদের সরকারি চিকিৎসায় তাদের আস্থা নেই।

কমেন্টস