টাংগাইলের মধুপুরে গারো শিশুকে ধর্ষণ, দুই সপ্তাহ পর অভিযুক্ত গ্রেফতার

প্রকাশঃ এপ্রিল ১৬, ২০১৮

বিডিমর্নিং নারী ডেস্কঃ

মধুপুর গড়াঞ্চলের গারো পল্লীতে ১১ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। গত ২ এপ্রিল টাংগাইলে এ ঘটনা ঘটলেও স্থানীয় প্রভাবশালীরা তা ধামাচাপা দিয়ে রাখার চেষ্টা করে।

গত রবিবার (১৫ এপ্রিল) সন্ধ্যায় ঘটনা জানাজানি হলে অভিযুক্তকে আটক করে থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সফিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্তকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়দের কাছ থেকে জানা গেছে, মধুপুর গড়াঞ্চলের বাসিন্দা রূপেন মৃ’র ছেলে প্রশান রেমা (২৮) একই এলাকায় বিয়ে করে ঘরজামাই থাকত। গত ২ এপ্রিল বিকালে বাড়িতে একা পেয়ে সে তার চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া ১১ বছর বয়সী শ্যালিকাকে ধর্ষণ করে। ঘটনাটি কাউকে জানালে শিশুটিকে মেরে ফেলার হুমকিও দেওয়া হয়। পরে ঘটনাটি জানাজানি হলে এলাকার প্রভাবশালী ব্যক্তিরা বিষয়টি মীমাংসা করার জন্য চাপ দিতে থাকেন।
এ ঘটনার দুই সপ্তাহ পরও মীমাংসা না হওয়ায় স্থানীয়রা রবিবার সন্ধ্যায় প্রশেন রেমাকে আটকের পর পুলিশে সোপর্দ করে। পরে শিশুটির মা নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে প্রশেন রেমার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

ওসি সফিকুল ইসলাম বলেন, ‘এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত প্রশান রেমাকে গ্রেফতার করে সোমবার (১৬ এপ্রিল) কারাগারে পাঠানো হয়েছে।’ শিশুটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান তিনি।

কমেন্টস