পানিতে ডুবে ছেলের মৃত্যু, মা ফেসবুকে ব্যস্ত

প্রকাশঃ অক্টোবর ১১, ২০১৫

বিডিমর্নিং ডেস্ক-

 

ফেসবুকে সময় দিতে গিয়ে ছেলের দিকে একদমই মনোযোগ দিতে পারেন না এই মা। ফেসবুক নিয়ে এতটাই ব্যস্ত ছিলেন যে ছেলে কখন যে পানিতে ডুবে যাচ্ছে সেদিকে কোন খেয়াল নেই!

 

 

এই অপরাধে পাঁচ বছরের জেল হল মায়ের। জরিমানাও হয়েছে।

 
গত বছর মার্চের ঘটনা। লন্ডনের অনতিদূরে, ইস্ট ইয়র্কশায়ারের বেভারলিতে বাড়ির বাগানে তাঁর দুই বছরের ছেলেকে নিয়ে বসেছিলেন মা ক্লেয়ার বার্নেট। বাগানের পাশেই পুকুর। শিশুটি বল নিয়ে খেলছিল আর তার দিকে খেয়াল না রেখে মা ক্লেয়ার ডুবেছিলেন তাঁর মোবাইলে। ফেসবুকে! কখন টুক করে তাঁর ছেলে পুকরে পড়ে ডুবে গেছে, জানতেও পারেননি। যখন খেয়াল হল মায়ের, তখন আর বিশেষ কিছু করার ছিল না। ছুটতে ছুটতে হাসপাতালে নিয়ে গিয়েছিলেন শিশুটিকে। কিন্তু, বাঁচাতে পারেননি।

 
শিশুর প্রতি ‘নিষ্ঠুরতা’র দায়ে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড হল মায়ের। অভিভাবকের দায়িত্ব যথাযথ ভাবে পালন করেননি বলে ওই মাকে তিরস্কার করেছে আদালত।

 
বিচারক বলেছেন, আপনার অবহেলার জন্যই আপনার শিশু-পুত্রের মৃত্যু হয়েছে। এর যন্ত্রণা আপনাকে সারা জীবন বয়ে বেড়াতে হবে। আপনি কিন্তু একেবারেই অভিভাবকের দায়িত্ব পালন করেননি।

 
এর আগেও একবার ওই শিশুটিকে রাস্তার ওপরেই খেলতে দেখেছিলেন প্রতিবেশীরা। পাশ দিয়ে খুব জোরে গাড়িঘোড়া যাচ্ছিল। সে বারও ক্লেয়ারকে তাঁর শিশুটির ওপর তেমন নজর রাখতে দেখা যায়নি। প্রতিবেশীরা সে কথাও জানিয়েছিলেন আদালতে।

Advertisement

কমেন্টস