আশুরার দিনে দেবী বিসর্জন বন্ধ করার সিদ্ধান্ত মমতার, ভারতজুড়ে তোলপাড়

প্রকাশঃ আগস্ট ২৪, ২০১৭

বিডিমর্নিং ডেস্ক-

১ অক্টোবর মুসলিমদের শোকের দিন পবিত্র আশুরা উপলক্ষে পশ্চিমবঙ্গে দুর্গা প্রতিমা বিসর্জন না করার নির্দেশনা দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। বুধবার দুর্গাপূজার আয়োজক, মুসলিম ও অন্য ধর্মাবলম্বী নেতাদের সঙ্গে এক বৈঠকে এ নির্দেশনা দেন মমতা। খবর এনডিটিভির।

মুখ্যমন্ত্রী বলেন, আশুরার দিনের শোক পালনের প্রস্তুতি আগের দিন সন্ধ্যা থেকেই শুরু হয়। পরদিন চলে তাজিয়া মিছিলসহ নানা ধর্মীয় কর্মসূচি। এসময় যেকোনো ধরনের সমস্যা এড়ানোর জন্য ও ধর্মীয় সম্প্রীতি বজায় রাখতেই দুর্গা প্রতিমা বিসর্জন বন্ধ থাকবে।

তিনি বলেন, বিজয়া দশমীর দিন সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত প্রতিমা বিসর্জন চলবে। তবে পরদিন আশুরা উপলক্ষে বিসর্জন বন্ধ থাকবে। এর পরদিন ২ অক্টোবর থেকে প্রতিমা বিসর্জন চলবে ৪ অক্টোবর পর্যন্ত।

এদিকে মমতা ব্যানার্জীর এ সিদ্ধান্তের পরপরই এর বিরুদ্ধে প্রতিক্রিয়া আসতে থাকে। কেউ কেউ তাকে সংখ্যালঘু তোষণকারী মুখ্যমন্ত্রীও বলেছেন। বিষয়টি নিয়ে রাজনীতির মাঠও বেশ গরম হয়ে উঠেছে। বিজেপির পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের প্রধান দিলিপ ঘোষাল রূঢ় প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন।

তিনি লিখেছেন, ‘পশ্চিমবঙ্গ কি তালেবানি শাসনের দিকে ধাবিত হচ্ছে? স্কুলে স্কুলে স্বরস্বতী পূজা বন্ধ করা হচ্ছে, দুর্গা পূজায় প্রতিমা বিসর্জন বারবার বাধাগ্রস্ত হচ্ছে, বাংলায় উর্ধু-আরবি শব্দের (আব্বা, আম্মা, আসমানি) ব্যবহার বাড়ছে… এসব তো তারই প্রমাণ। এরপর দিদিমনিকে (মমতা ব্যানার্জি) আমাদের উর্দুতে আপা বলতে হবে।’

প্রসঙ্গত, এবার হিন্দুদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজার শেষ দিন অর্থাৎ বিজয়া দশমী ৩০ সেপ্টেম্বর। এর পরদিন ১ অক্টোবর পবিত্র আশুরা। এ অবস্থায় যেকোনো ধরনের সমস্যা এড়াতে আশুরার দিন পশ্চিমবঙ্গে দুর্গা প্রতিমা বিসর্জন না করার নির্দেশনা দিয়েছেন মমতা ব্যানার্জী।

কমেন্টস