ব্রিটেনে কোকা-কোলার বন্ধের দাবি স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের

প্রকাশঃ জানুয়ারি ১১, ২০১৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক-
ব্রিটেনের অন্তত ৪৪টি স্থানে ছুটির দিনে ট্রাকে করে বিনামূল্যে কোকা-কোলা পানীয়ের ক্যান দেওয়ার বিরুদ্ধে প্রবল আপত্তি তুলেছেন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এধরনের কোমল পানীয় শিশুদের যে শুধু মোটা হতে সাহায্য করে তা নয়, একই সঙ্গে দাঁত বিনষ্ট হতে সাহায্য করে। ক্রিসমাস ট্রাক ট্যুর হিসেবে পরিচিত এধরনের ক্যাম্পেনে কোকা-কোলা বিনামূল্যে সরবরাহ করা হয় এবং শিশুরা তা খেয়ে স্বাস্থ্যকর নয় এমন জীবন যাপনে অভ্যস্ত হয়ে ওঠে। বিশেষজ্ঞরা এধরনের ক্যাম্পেন বন্ধ করার দাবি করেছেন।

ব্রিটিশ মিডিয়া জার্নালে ফুড এ্যাক্টিভ নামে একটি প্রতিষ্ঠানের পরিচালক রবিন আয়ারল্যান্ড ও জনস্বাস্থ্য কনসালটেন্ট জন এ্যাশটন একটি প্রবন্ধে এধরনের দাবি জানিয়েছেন।

দি ম্যানচেস্টার ইভিনিং নিউজ এক প্রতিবেদনে বলছে, বিশেষজ্ঞরা দাবি করেছেন কোকা-কোলা কোম্পানি বিভিন্ন ইভেন্ট, কম্যুনিটি স্পোর্টস ও গরিবদের মাঝে খাবার বিতরণের মত আয়োজনে স্বাস্থ্যকর ওজনের নামে বিতর্ক সৃষ্টি করছে। অথচ কোকা-কোলার ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে একটি সিঙ্গেল কোকা ক্যানের পানীয়তে সাত চা চামচ সমপরিমাণ চিনি রয়েছে।

বিশেষজ্ঞরা তাদের প্রতিবেদনে বলেছেন, ক্রিসমাসে বিনামূল্যে কোকা-কোলা দেওয়া ঐতিহ্যে দাঁড়িয়েছে। সান্তাক্লজরাও এ পানীয় দিচ্ছে। বিনামূল্যের ক্রিসমাস কোকাকোলা ট্রাকট্যুর গত ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে ম্যানচেস্টার, ল্যানচেস্টার, লিভারপুল ও সেন্টহেলেন্সে বিনামূল্যে কোকা-কোলা সরবরাহ করেছে। পরিসংখ্যানে দেখা গেছে ব্রিটেনের উত্তর পশ্চিম এলাকায় ১০ থেকে ১১ বছরের শিশুদের মধ্যে ৩৩ দশমিক ৪ ভাগ শিশুই অতিরিক্ত মোটা। তাদের অনেকের দাঁত নষ্ট হয়ে গেছে। এদের চিকিৎসায় অতিরিক্ত স্বাস্থ্য বাজেট খরচ করতে হচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা তাই এধরনের বিনামূল্যে কোকাকোলা দেওয়ার বিরুদ্ধে জনস্বাস্থ্য বিভাগ, চিকিৎসক, শিক্ষাবিদসহ পেশাজীবীদের এগিয়ে আসার আহবান জানান।

তবে কোকাকোলার মুখপাত্র বলেছেন, মানুষের কাছ থেকে ক্রিসমাস ট্রাকট্যুরে ব্যাপক সাড়া পাওয়া গেছে। মোটা হওয়ার বিষয়টি লক্ষ্য রেখে আমরা চিনিমুক্ত ও ডায়েট কোক বিনামূল্যে দিচ্ছি।
সূত্র মিরর

Advertisement

কমেন্টস