এসি ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ব্যবহারের নির্দেশ

প্রকাশঃ জুলাই ৩, ২০১৭

বিডিমর্নিং ডেস্ক-

বিদ্যুৎ বিভাগ সরকারি-বেসরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে এসি ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস বা তার ওপরের তাপমাত্রায় ব্যবহারের নির্দেশ দিয়েছে। 

রবিবার বিদ্যুৎ বিভাগ থেকে এ-সংক্রান্ত চিঠি সব প্রতিষ্ঠানে পাঠানো হয়েছে। চিঠিতে বলা হয়েছে, কেবল অধিক জনসমাগম হলে ২৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ব্যবহার করা যাবে। চিঠিতে স্বাক্ষর করেছেন বিদ্যুৎ বিভাগের যুগ্ম–সচিব মোহাম্মদ আলাউদ্দিন।

বিদ্যুৎ বিভাগের মতে, শীতাতপনিয়ন্ত্রণ যন্ত্র খুব কম তাপমাত্রায় ব্যবহার করে বিদ্যুতের অপচয় করা হচ্ছে। এমনকি কর্মকর্তা কক্ষে না থাকলেও এসি ছেড়ে রাখা হচ্ছে। এর আগেও এ বিষয়ে নির্দেশনা দেওয়া হলেও তা মানা হচ্ছে না। ফলে বিদ্যুতের ঘাটতি থেকেই যাচ্ছে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে মোহাম্মদ আলাউদ্দিন বলেন, ‘২০০৯ সালেও এ বিষয়ে একটি সিদ্ধান্ত হয়েছিল। কিন্তু আমাদের কাছে অভিযোগ এসেছে এবং তথ্যও রয়েছে, বেশির ভাগ কর্মকর্তারাই এ আদেশ মানছেন না। তাই আমরা আবারও চিঠি দিয়ে সতর্ক করে দিচ্ছি।’

সচিবালয়ে সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, সচিব থেকে শুরু বেশির ভাগ কর্মকর্তার কক্ষেই ১৬ থেকে ১৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে এসি চলছে। অনেকের কক্ষে দেখা যায় ফ্যান ও এসি একসঙ্গে চলছে, কর্মকর্তা গায়ে জড়িয়ে আছেন কোট। এ ছাড়া প্রাধিকার না থাকলেও ব্যক্তিগত কর্মকর্তা থেকে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ প্রায় সবার কক্ষেই এসি চলছে।

এক কর্মকর্তা বলেন, কিছু কিছু কক্ষে গেলে মনে হয় সাইবেরিয়াতে আছি। সকাল নয়টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত টানা চলতে থাকে এ যন্ত্র।

ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের সাবেক স্পেশাল টাস্কফোর্স প্রধান মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরীর মতে, এসির ব্যবহারেও রয়েছে অজ্ঞতা ও অবহেলা।

এসির এয়ার ফিল্টার নিয়মিত পরিষ্কার রাখলে অন্তত ৫ শতাংশ বিদ্যুৎ সাশ্রয় হয়। অবিরাম না চালিয়ে বিরতি দিলে এবং কম তাপমাত্রায় এসির ব্যবহারেও বিদ্যুতের সাশ্রয় হয়।

কমেন্টস