৭১তম কান উৎসবের শুরুতেই লিঙ্গ বৈষম্য নিয়ে বিতর্ক !

প্রকাশঃ মে ৯, ২০১৮

বিডিমর্নিং বিনোদন ডেস্ক- 

৭১তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের পর্দা উন্মোচিত হল গতকাল মঙ্গলবার (৮ মে) সন্ধ্যায়। চলবে আগামী ১৯ মে পর্যন্ত। গতকাল থেকেই আসতে শুরু করেছেন অতিথিরা। এরইমধ্যে লাল গালিচায় আলো ছড়িয়েছেন পেনেলোপে ক্রুজ, জেভিয়ের বারডেম, কেট ব্লানচেট, ক্রিস্টেন স্টুয়ার্টরা।

কিন্তু শুরুতেই লিঙ্গ বৈষম্য নিয়ে উৎসবকে ঘিরে বিতর্ক শুরু হয়ে গেছে। যুগ যুগ ধরে নারীদের উপেক্ষা, অবমাননা ও শ্লীলতাহানির অভিযোগের অভিযুক্ত হলিউড। #মি টু আন্দোলন যেটিকে আরও বেগবান করেছে। এবার অভিযোগ উঠেছে, কানের বিচারকরা উৎসবের জন্য আরও বেশি নারী চলচ্চিত্র নির্মাতা নির্বাচনে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে।

এ বছর কানের প্রধান বিচারক হিসেবে আছেন অস্ট্রেলীয় অভিনেত্রী কেট ব্ল্যানচেট। এছাড়াও আছেন মার্কিন অভিনেত্রী ক্রিস্টেন স্টুয়ার্ট, ফরাসি অভিনেত্রী লেয়া সেদু, মার্কিন পরিচালক আভা ডুভারনে, বুরুন্ডিয়ান সংগীতশিল্পী খাজা নিন, চীনা অভিনেতা চ্যাং চেন, কানাডিয়ান পরিচালক ডেনিস ভিলেন্যুভ, রুশ পরিচালক আন্দ্রে জিভিয়াজিন্তসেভ ও ফরাসি পরিচালক রবার্ট গেদিজিয়ন।

উৎসবে আনুষ্ঠানিকভাবে মোট ২১টি ছবি নির্বাচন করা হয়েছে যার মধ্যে মাত্র তিনটি নারী ছবি নারী নির্মাতার। উৎসবের উদ্বোধনী দিনে এ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে মূল বিচারক কেট ব্ল্যানচেট বলেন, লিঙ্গগত পরিচয় দিয়ে এসব নারী নির্মাতাদের নির্বাচন করা হয়নি। কাজের মান দিয়ে তারা এখানে এসেছে এবং তাদের আমরা চলচ্চিত্র নির্মাতা হিসেবেই বিচার করছি, এটাই হওয়া উচিত।

গত বছরগুলোর তুলনায় এবার উৎসবের বিচারকের আসনে নারীদের সংখ্যা বেশি উল্লেখ করে কেট আরও বলেন, ‘অবশ্যই পরিবর্তন আসবে। তবে রাতারাতি কিছু ঘটবে না।’

কমেন্টস