উন্নত চিকিৎসার অপেক্ষায় আবদুল জব্বার

প্রকাশঃ জুলাই ১৬, ২০১৭

বিডিমর্নিং বিনোদন ডেস্ক-

কিংবদন্তি কণ্ঠশিল্পী আবদুল জব্বারের হাসপাতালের বিছানায় শায়িত। তার শারীরিক অবস্থার কোন উন্নতি হয়নি। চিকিৎকদের কথানুযায়ী তার দরকার উন্নত চিকিৎসা।

কিছুদিন আগে তিনি আক্ষেপ করে বলেছিলেন, ‘লাইফ সাপোর্টে থাকলে দেখতে আসবেন, মারা গেলে কবরে ফুল দেবেন, এসবের আমার দরকার নেই। আমি বাঁচতে চাই।’

গুণী এই শিল্পীর চিকিৎসা সহায়তায় এগিয়ে এসেছেন সরকার। তার চিকিৎসার জন্য দেওয়া হয়েছে ২০ লাখ টাকা। পাশে দাঁড়িয়েছেন আরও অনেকেই। কিন্তু আবদুল জব্বারের উন্নত চিকিৎসার জন্য দরকার আরও অর্থ। সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসা করাতে চান তিনি। এ জন্য আবারও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করেছেন আবদুল জব্বার ও তার পরিবার।

হৃদরোগ, কিডনি ও প্রস্টেটসহ বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন রোগে ভুগছেন তিনি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এই শিল্পী আবারও সুস্থ হবেন, এমনটাই মনে করছে তার পরিবার।

আবদুল জব্বার, যিনি স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় হারমোনিয়াম গলায় ঝুলিয়ে কলকাতার বিভিন্ন ক্যাম্পে গিয়ে গান গেয়ে মুক্তিযোদ্ধাদের উদ্ধুদ্ধ করেছেন। সেই দুঃসময়ে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রে গেয়েছেন অনেক গান। স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্র থেকে এই শিল্পীর গাওয়া বিভিন্ন গান মুক্তিযোদ্ধাদের প্রেরণা ও মনোবল বাড়িয়েছে। গান গেয়ে পাওয়া ১২ লাখ টাকা স্বাধীন বাংলাদেশ সরকারের ত্রাণ তহবিলে দান করেছিলেন।

আবদুল জব্বার ‘তুমি কি দেখেছো কভু’, ‘সালাম সালাম হাজার সালাম’, ‘জয় বাংলা বাংলার জয়’, ‘ওরে নীল দরিয়া’, ‘পিচঢালা এই পথটারে’সহ কিছু কালজয়ী গানে কণ্ঠ দিয়ে সব শ্রেনীর শ্রোতাদের মন জয় করেছেন।

এখন তার ব্যবহৃত ফোন নম্বরে কল করলে এখন কবিগুরুর এই গান ভেসে আসে। হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে, এমন ঘোর সংকটের দিনে, ‘কেন মেঘ আসে’— এমন প্রশ্নই বুঝি ফিরে ফিরে আসছে তার মনে!

স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের কণ্ঠশিল্পী, একুশে পদক  ও স্বাধীনতা পদক পাওয়া ৭৯ বছর বয়সী আবদুল জব্বার উন্নত চিকিৎসা পাবেন তো?

কমেন্টস