ফরিদপুরে নবান্ন উৎসব পালিত

প্রকাশঃ নভেম্বর ১৭, ২০১৭

হারুন-অর-রশীদ,ফরিদপুর প্রতিনিধি :

 

আলোচনাসভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, পিঠা প্রদর্শন ও ধান কেটে ফরিদপুরে নবান্ন উৎসব পালন করা হয়েছে। বুধবার অগ্রহায়ণের প্রথম দিন জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ উৎসবের আয়োজন করা হয়।

বুধবার দুপুরে ফরিদপুর বায়তুলামান এলাকায় স্থানীয় কৃষকদের সঙ্গে বিধান ৪৯ ধান কেটে নবান্ন উৎসবের কার্যক্রম শুরু করেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) উম্মে সালমা তানজিয়া। পরে বায়তুলামান রেলক্রসিং জামে মসজিদ প্রাঙ্গণে খামার যান্ত্রিকিকরনের মাধ্যমে ফসল উতপাদন বৃদ্ধি প্রকল্পের আওতায় কোম্বাইন্ড হারভেস্টার দ্বারা শস্য কর্তন বিষয়ক মাঠ দিবসের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ আবুল বাসার মিয়ার সভাপতিত্বে আলোচানা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা প্রশাসক (ডিসি) উম্মে সালমা তানজিয়া। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিঃ জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এরাদুল হক, ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার জামাল পাশা, ফরিদপুর কৃষি অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ কার্তিক চক্রবর্তী।

এরপর বিকাল ৪টায় জেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে পিঠা উৎসব ও আলোচনা সভা অনুষ্টিত হয়।২১ টি ষ্টলের মাধ্যমে আগত বিভিন্ন স্কুল ও প্রতিষ্ঠান পিঠার পসরা সাজিয়ে বসে। প্রথমে আগত অতিথিবৃন্দ ফিতা কেটে ও বেলুন উড়িয়ে মেলা প্রাঙ্গণে প্রবেশ করে। এরপর সকলে মিলে পিঠার ষ্টল গুলো ঘুরে ঘুরে দেখে। পরে মেলা প্রাঙ্গণে নবান্ন উৎসবের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

ফরিদপুর জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুর রশীদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক উম্মে সালমা তানজিয়া।এতে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাস(সার্বিক) মো. এরাদুল হক, ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. জামাল পাশা, ফরিদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি মো.ইমতিয়াজ হাসান রুবেল,মুক্তিযোদ্ধা জেলা কমান্ডার মুহাম্মদ আবুল ফয়েজ শাহনেওয়াজ,আবু সুফিয়ান চৌধুরী কুশল,আব্দুর রাজ্জাক মোল্লা, শওকত আলী জাহিদ প্রমুখ।

প্রধান অতিথি বলেন,অগ্রহায়ণ মাসে নতুন ধান উঠায় বাংলার ঘরে ঘরে পিঠা-পুলি দিয়ে আপ্যায়ন করা হত। পরে বিভিন্ন স্টলে বাংলার ঐতিহ্যবাহী পিঠা-পুলির প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়।

কমেন্টস