বাড়িতে নিয়ে প্রেমিকাকে ধর্ষণ, প্রেমিকার অনশন অতঃপর ধর্ষণের মামলা

প্রকাশঃ জুলাই ৫, ২০১৭

Advertisement

শামসুজ্জোহা পলাশ, চুয়াডাঙ্গা-  

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার জুড়ানপুর ইউনিয়নের মজলিসপুর গ্রামে বিয়ের দাবি নিয়ে প্রেমিকের বাড়িতে কলেজছাত্রী তিন দিন অবস্থান করার পর গতকাল মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে প্রেমিকা নাজমুন নাহার রিভা প্রেমিক রানাকে আসামি করে দামুড়হুদা থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে।

রানা আলমডাঙ্গা হারদী কৃষি কলেজের ১ম বর্ষের ছাত্র। ধর্ষিত কলেজ ছাত্রী জেলার আলমডাঙ্গার আসমানখালীর গাংনী গ্রামের আমিনুল ইসলামের মেয়ে এবং চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজ থেকে এ বছর এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়।

দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু জিহাদ জানান, দামুড়হুদার মজলিশপুরের ছানোয়ার হোসেনের কলেজ পড়ুয়া ছেলে রানার সঙ্গে আলমডাঙ্গা উপজেলার বড় গাংনীর আমিনুলের কলেজ পড়ুয়া মেয়ে নাজমুন নাহার রিভার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। বিভিন্ন সময়ে তাদের দৈহিক সম্পর্কও হয়েছে। একপর্যায়ে গত রবিবার রিভাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে নিজ বাড়িতে নিয়ে ধর্ষণ করে এবং বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানায় রানা।

পরে কোনো উপায় না পেয়ে রবিবার সকালে প্রেমিক রানার বাড়িতেই বিয়ের দাবি নিয়ে অবস্থান নেয় রিভা। অবস্থা বেগতিক দেখে রানা আত্মগোপন করে। এরপর মঙ্গলবার (৪ জুলাই) রাতে ধর্ষিত কলেজছাত্রী বাদী হয়ে দামুড়হুদা থানায় প্রেমিক রানাকে আসামি করে ধর্ষণ মামলা দায়ের করলে রাতেই প্রেমিক রানাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

তিনি আরোও জানান, ধর্ষিত কলেজছাত্রীর ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য পুলিশ হেফাজতে নিজে আজ (৫ জুলাই) বুধবার দুপুরে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

Advertisement

Advertisement

কমেন্টস