মৌলভীবাজারে ‘গণধর্ষিতা’ ছাত্রীর লাশের সন্ধান দিল মহিষ!

প্রকাশঃ মে ১৯, ২০১৭

বিডিমর্নিং ডেস্ক-

মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলার টেংরা ইউনিয়নের কাছাড়ী করিমপুর গ্রামে বাড়ির পাশের জমিতে মহিষ চড়ানোর সময় একটি মহিষ জঙ্গলে ঢুকে যায়। ঐ মহিষটিকে আনতে গিয়ে জঙ্গলের মধ্যে শাম্মী আখতার (১৮) নামে এক কলেজছাত্রীর লাশ পড়ে থাকতে দেখে লোকমান মিয়া। লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে লাশটি উদ্ধার করে।

শুক্রবার সকালে জঙ্গল থেকে কলেজছাত্রীর লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। তারাপাশা স্কুল অ্যান্ড কলেজের এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী  শাম্মি আখতার ওই গ্রামের হারুন মিয়ার মেয়ে।

নিহতের বাবা হারুন মিয়া জানান, ‘বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে শাম্মি প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বাড়ির বাইরে যায়। দীর্ঘ সময় ধরে ফিরে না আসায় তাকে অনেক খোঁজাখুঁজি করা হয়।’

শাম্মির ভাই শাকিব মিয়া জানান, ‘শুক্রবার সকালে তাদের বাড়ির পাশের জমিতে মহিষ চড়াতে যান লোকমান মিয়া। এসময় একটি মহিষ পাশের জঙ্গলে ঢুকে যায়। তিনি (লোকমান) ওই মহিষ আনতে গিয়ে শাম্মির লাশ পড়ে থাকতে দেখেন।’

পুলিশের ধারণা, ওই কলেজছাত্রীকে গণধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে।

রাজনগর থানার ওসি শ্যামল বণিক বলেন, ‘আলামত দেখে মনে হচ্ছে গণধর্ষণের পর তাকে হত্যা করা হয়েছে। লাশের মুখে বেশ কিছু নখের দাগ ও ক্ষত চিহ্ন রয়েছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘ওই কলেজ ছাত্রী লাশ উদ্ধার করে মৌলভীবাজার হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।’

মৌলভীবাজার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল ও সহকারী পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) রাশেদুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

 

কমেন্টস